banglanewspaper

তথ্যপ্রযুক্তি আইনে এক তরুণীর দায়ের করা মামলায় গ্রেপ্তার হয়েছেন ক্রিকেটার আরাফাত সানি। গত রোববার সকালে মোহাম্মদপুর থানা পুলিশ তাঁকে ঢাকার আমিনবাজার থেকে গ্রেপ্তার করে। এরপর একদিনের রিমান্ড শেষে তাঁকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

দেরিতে হলেও বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) কর্মকর্তা এই বিষয়ে মুখ খুলেছেন। আরাফাত সানি দোষী প্রমাণিত হলে তাঁকে প্রয়োজনে নিষিদ্ধ করা হবে বলে জানিয়েছেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান।

মঙ্গলবার বিসিবির কার্যালয়ে সাংবাদিকদের নাজমুল হাসান বলেন, ‘অবশ্যই নিষিদ্ধ হবে সে। এই ধরনের খেলোয়াড়দের নিষিদ্ধ না হওয়ার কোনো কারণ নেই, তবে প্রমাণ সাপেক্ষ। আদালতে প্রমাণ হতে হবে সে দোষী। একটা নিউজ দেখেই তাঁকে নিষিদ্ধ করতে পারি না আমরা। তবে দোষী প্রমাণিত হলে এই ধরনের খেলোয়াড়দের ক্রিকেটে থাকার সুযোগ নেই।’

গত ৫ জানুয়ারি নাসরিন সুলতানা নামের এক তরুণী আরাফাত সানির বিরুদ্ধে এই মামলা দায়ের করেন। সে তরুণীর দাবি, জাতীয় দলের বাইরে থাকা এই ক্রিকেটারের সঙ্গে তাঁর বৈবাহিক সম্পর্ক রয়েছে। তা ছাড়া ফেসবুকে কিছু আপত্তিকর ছবি আপলোড করেছেন, এই অভিযোগে তাঁর বিরুদ্ধে এই মামলা করেন তিনি। 

ট্যাগ: