banglanewspaper

নিজস্ব প্রতিবেদক: ঢাকা থেকে কক্সবাজারে খালেদা জিয়া যেভাবে হলুদ শাড়ি পরে গিয়েছেন, আর তার দলের নেত্রীরা যেভাবে ফুল ছিটিয়ে তাকে বরণ করেছিলেন তাতে মনে হয়েছে রোহিঙ্গা ক্যাম্প নয়, তিনি কোনো গায়ে হলুদ অনুষ্ঠানে গিয়েছিলেন।

মঙ্গলবার (৩১ অক্টোবর) দুপুর ১২টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এমন কথা বলেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাসান মাহমুদ এমপি।

রোহিঙ্গাদের সহায়তার নামে জন-দুর্ভোগ সৃষ্টিকারী খালেদা জিয়ার মিথ্যাচারের প্রতিবাদে' এ মানববন্ধনের আয়োজন করেন বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট।

মানববন্ধনে আওয়ামী লীগের এই মুখপাত্র আরো বলেন, তিনি ত্রাণ দিতে গিয়ে ঢাকা থেকে কক্সবাজার পর্যন্ত যানজটের ভোগান্তি সৃষ্টি করেছেন।খালেদা জিয়া রোহিঙ্গাদেরকে মানব ঢাল হিসেবে ব্যবহার করেছেন। তিনি একটি মানবিক কর্মসূচির আড়ালে রাজনৈতিক কর্মসূচি পালন করেছেন।

তিনি আরো বলেন, ‘আমাদের দেশে যখন কোনো বিদেশি নায়ক নায়িকা কোনো পণ্যের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হিসেবে এসে কোনো শিশুকে কোলে নিয়ে হাসি দিয়ে পোজ দেন, খালেদা জিয়াও রোহিঙ্গা ক্যাম্পে গিয়ে তেমন অ্যাম্বাসেডরদের মতো একটি শিশুকে কোলে নিয়ে হাসিমুখে পোজ দিলেন। তিনি হাসেন তার পেছনে নারী দলের নেত্রীরাও হাসেন। তার মধ্যে কোনো আবেগ বা করুণা ছিলোনা’।

এদিকে আমাদের প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাও রোহিঙ্গা ক্যাম্পে গিয়েছিলেন। সেখানে তিনি রোহিঙ্গাদের বুকে টেনে নিয়েছেন, তার চোখে অশ্রু ছিলো। তার চোখমুখ বিষন্নতায় ভরা ছিলো।

খালেদা জিয়ার বক্তব্যকে একটি কমিক উল্লেখ করে তিনি বলেন, খালেদা জিয়ার বক্তব্য হলো একটি বড় কমিক। তিনি সরকারি সুযোগ সুবিধা নিয়ে, সরকারি নিরাপত্তা নিয়ে সেখানে গিয়ে সরকারের বিরুদ্ধে কথা বলেন। খালেদা জিয়কে আমি বলবো আপনি মিথ্যাচারেরর রাজনীতি পরিহার করেন।

মানববন্ধনে আয়োজক সংগঠনের সিনিয়র সহ-সভাপতি চিত্রনায়ক ড্যানি সিডাকের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন-  আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী।

এছাড়া মানববন্ধনে আরো বক্তব্য রাখেন- বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের সহ-সভাপতি ফয়েজ উদ্দিন ভুইয়া, আব্দুল মতিন ভুইয়া, চিত্রনায়িকা দিলারা ইয়াসমিন, সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমানসসহ আরো অনেকে।

ট্যাগ: