banglanewspaper

পাঁচ বছর আগে ইরানে মাসিহ আলিনেজাদ নামে এক নারী দেশটিতে অভিনব এক আন্দোলন শুরু করেন। দেশটিতে বাধ্যতামূলক ভাবে হিজাব বা মাথা ঢাকার স্কার্ফ ব্যবহারের বিরুদ্ধে আন্দোলন করেন তিনি।

সেই আন্দোলনে যোগ দেয় কয়েক হাজার নারী। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে এই খবর দ্রুত ছড়িয়ে পরে এবং রাস্তায় অভূতপূর্ব বিক্ষোভ হয়।

কিন্তু এই বিক্ষোভ আন্দোলনের পাঁচ বছর হতে চলেছে, যে লক্ষ্য নিয়ে এটা শুরু হয়েছে তার কাছাকাছি কতটা পৌছাতে পেরেছে?

শুরুটা হয়েছিল একদম নিরীহ একটা ঘটনাকে কেন্দ্র করে। একজন নারী ইরানের পাহাড়ি পথে গাড়ী চালাচ্ছেন, আর তার খোলা চুলে বাতাস খেলা করছে।

নিজের এমন একটি ছবি মাসিহ আলিনেজাদ সোশ্যাল মিডিয়াতে পোষ্ট করেন। তার কাছে এটা ছিল সাধারণ একটা স্বাধীনতা ভোগ করার মত একটা ঘটনা।

এরপর তিনি অন্য নারীদের আহ্বান জানান তারাও যেন তাদের গোপন স্বাধীনতার মুহূর্ত শেয়ার করে।

ফলস্বরুপর সারাদেশ থেকে অসংখ্য নারী তাদের ছবি পোষ্ট করতে থাকেন যেগুলোর বেশিরভাগই দেখা যায় মাথায় হিজাব নেই।

এখান থেকেই শুরু হয় সোশ্যাল মিডিয়াতে বাধ্যতামূলক মাথা ঢাকার স্কার্ফ ব্যবহারের বিরুদ্ধে আন্দোলন।

এই আন্দোলন পরে আরো অন্য আন্দোলনকে উস্কে দেয়। যেমন, #whitewednesdays, #girlsofenghelabstreet এবং #mycameraismyweapon এই হ্যাসট্যাগ দেয়া নামে সোশ্যাল মিডিয়াতে ব্যাপক জাগরণ তৈরি হয়।

মাসিহ'র সোশ্যাল মিডিয়াতে রয়েছে ২৫ লক্ষের বেশি অনুসারী যেটা কিনা বাধ্য করেছে দেশটির সরকারকে তাকে বিবেচনার মধ্যে আনতে। খবর বিবিসি।

ট্যাগ: banglanewspaper হিজাব