banglanewspaper

আজ ভাষার মাস ফেব্রুয়ারির প্রথম দিন। বিকেল ৩ টায় বাংলা একাডেমি চত্বরে বাঙালির প্রাণের মেলার শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করবেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকবেন সংস্কৃতি মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর। সভাপতিত্ব করবেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান।

গ্রন্থমেলায় টিএসসি, দোয়েল চত্বর দিয়ে দুটো মূল প্রবেশ পথ, বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণে তিনটি পথ, সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে প্রবেশ ও বাইরের আটটি পথ থাকবে।

অন্যবারের তুলনায় গ্রন্থমেলার পরিধি এবার বেড়েছে। বাংলা একাডেমিসহ ১৪টি প্রকাশনা প্রতিষ্ঠানের জন্য ছয় হাজার বর্গফুটের ১৫টি প্যাভিলিয়ন বরাদ্দ করা হয়েছে। একাডেমি প্রাঙ্গণে ৮৩টি প্রতিষ্ঠানকে ১১১টি ইউনিট; সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ৩২০টি প্রতিষ্ঠানকে ৫৪০টি ইউনিট; মোট ৪০২টি প্রতিষ্ঠানের জন্য ৬৫১টি ইউনিট বরাদ্দ করা হয়েছে। মেলায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যান অংশকে ভাগ করা হয়েছে ১৫টি চত্বরে।  

গ্রন্থমেলায় বরাবরের মতোই ক্রেতারা বাংলা একাডেমি প্রকাশিত বই ৩০ শতাংশ ও অন্যান্য প্রকাশনীর বই ২৫ শতাংশ ছাড়ে কিনতে পারবেন।  

মেলায় ২রা ফেব্রুয়ারি থেকে ২৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত প্রতিদিন বিকেল ৪টায় মূলমঞ্চে সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে। মাসব্যাপী সন্ধ্যায় থাকবে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সেইসঙ্গে শিশু-কিশোর চিত্রাঙ্কন, সাধারণ জ্ঞান প্রতিযোগিতা, উপস্থিত বক্তৃতা, সংগীত প্রতিযোগিতা ইত্যাদি আয়োজন করা হয়েছে।

 

মেলার সার্বিক নিরাপত্তার দায়িত্ব পালন করবে বাংলাদেশ পুলিশ, র‌্যাব, আনসার, বিজিবি ও গোয়েন্দা সংস্থারসমূহের নিরাপত্তাকর্মীবৃন্দ। তাই এবার মেলা প্রাঙ্গণে কোনো ধরনের দুর্ঘটনা ঘটার আশঙ্কা নেই।

ট্যাগ: