banglanewspaper

অস্ত্র, গোলাবারুদ ও ইয়াবাসহ আটকের পর কুষ্টিয়া জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি রাজীব আহম্মেদকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১৭ জুলাই) রাতে তাকে বহিষ্কার করা হয়।

জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইয়াসির আরাফত তুষার বলেন, দলের গঠনতন্ত্র বিরোধী কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকায় রাজীবকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। 

জেলা ছাত্রলীগের একটি সূত্র জানিয়েছে, রাজীব ইয়াবা ও গুলিসহ গ্রেফতারের পর জরুরি সভা ডাকা হয়। সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী তাকে দলীয় পদ থেকে বহিষ্কারের সুপারিশ করে কেন্দ্রে চিঠি পাঠানো হয়। মঙ্গলবার রাতেই কেন্দ্র থেকে তাদের বহিষ্কার করে জেলায় চিঠি পাঠানো হয়। চিঠিতে দলীয় শৃংখলা ভঙ্গ করায় রাজীবকে সংগঠন থেকে বহিষ্কার করার হয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে। 

সোমবার (১৬ জুলাই) সন্ধ্যায় সদর উপজেলার খাজানগর এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।

রাজিব আহম্মেদ কুষ্টিয়া সদর উপজেলার খাজানগর এলাকার চাতাল ব্যবসায়ী মোহাম্মদ আলী জিন্নাহর ছেলে।

র‌্যাব-১২ সূত্রে জানা গেছে, রাজিব আহম্মেদ অস্ত্র মেরামতকারী কারিগর এবং সে দীর্ঘদিন ধরে মাদক ও অস্ত্রের ব্যবসা করে আসছিল। সোমবার সন্ধ্যায় উপজেলার খাজানগর এলাকায় অভিযান চালিয়ে রাজিব আহম্মেদকে আটক করা হয়।

এ সময় তার কাছ থেকে ১৬০ পিস ইয়াবা, ২৩ রাউন্ড শটগানের গুলি, অবৈধ এয়ারগান ও ৫ শতাধিক ইয়ারগানের গুলি এবং বিভিন্ন আগ্নেয়াস্ত্রের অংশবিশেষ উদ্ধার করা হয়। পরে তাকে দুই মামলায় কারাগারে পাঠানো হয়েছে। 

ট্যাগ: banglanewspaper বহিষ্কার