banglanewspaper

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের শান্তিপূর্ণ আন্দোলনের বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির ‘উস্কানিদাতা’ বিএনপি নেতা আমীর খসরু ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্নাসহ আরও কয়েকজনকে গ্রেফতারের দাবি জানিয়েছেন আওয়ামীলীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

সোমবার (৬ আগস্ট) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বাংলাদেশ স্বাধীনতা পরিষদ উদ্যোগে ‘বিএনপি-জামায়াত’ ঐক্য দেশে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির পায়তারার প্রতিবাদে আয়োজিত এক মানববন্ধন ও সমাবেশে এসব কথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, কোমলমতি শিক্ষার্থীদের যৌক্তিক দাবি সরকার অনেক আগেই মেনে নিয়েছে কিন্তু বিএনপি জামাতের ক্যাডাররা শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে অনুপ্রবেশ করেছে। বিএনপি নেতা আমীর খসরু ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্নার ফোনালাপ ফাঁস হয়েছে। এটা বুঝতে আর কিছু বাকি নয় যে এক এগারোর কুশীলবরা এদের সাহায্য করছে।’

তিনি আরও বলেন, শিক্ষার্থীরা যখন সরকারের দেয়া আশ্বাস মেনে বাড়ী ফিরে চলে যাচ্ছিল তখন বিভিন্ন ইউনিভার্সিটির ছাত্ররা ও বিএনপি`র ক্যাডাররা শাহবাগে সমাবেশ করে। তারপর ধানমন্ডিস্থ সভানেত্রীর কার্যালয় অভিমুখে মিছিল করে রওনা দেয়। তাদের কোনো দাবি থাকলে তারা প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে যেতে পারতো কিংবা সচিবালয় যেতে পারতো। কিন্তু সভানেত্রীর কার্যালয় কেন?

কোমলমতি শিক্ষার্থী সেজে বিএনপি-জামাতের গুন্ডারা সহিংসতা সৃষ্টি করেছে এমন মন্তব্য করে তিনি বলেন, বিএনপি ও জামায়াত-শিবিরের’ গুন্ডারা পরিকল্পিতভাবে আওয়ামীলীগ কার্যালয়ে হামলা করেছে। গতকালও তাদের একই পরিকল্পনা ছিল। আমাদের নেত্রী আমাদের শান্ত থাকার নির্দেশনা দিয়েছেন। আমরা শান্ত আছি। কিন্তু কেউ দেশে সহিংসতা সৃষ্টি করতে চাইলে তো আর আওয়ামীলীগ কর্মীরা বসে বসে আঙুল চুসবে না।

হাছান মাহমুদ বলেন, আমরা দেখেছি এক নারী ফেসবুক লাইভে এসে হাপিয়ে হাপিয়ে গুজব ছড়িয়েছেন। এমন মনে হল যে উনি এখনি ধাওয়া খেয়ে পালিয়েছেন। উনাকে গ্রেপ্তারের পর জানা গেল যে উনি আন্দোলনে ছিলেন না। আমরা এটাও জানতে পেরেছি যে ৫০ হাজার টাকার বিনিময়ে তিনি এ গুজব ছড়িয়েছেন।

আমীর খসরুর বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। যে যুবকের সাথে তার কথা হয়েছে তাকেও গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ তবে আমীর খসরু এখনও ধরাছোঁয়ার বাইরে রয়েছে। আমি তাকে গ্রেপ্তারের দাবি জানাচ্ছি একই সাথে মাহমুদুর রহমান মান্নাকেও গ্রেপ্তার করার আহ্বান জানান তিনি।

ট্যাগ: banglanewspaper হাসান মাহমুদ