banglanewspaper

কলকাতায় সদ্য মুক্তি পেয়েছে জয়া অভিনীত ‘ক্রিসক্রস’। এদিকে নিজের প্রযোজনা সামলে তিনি প্রস্তুত হচ্ছেন কলকাতায় ‘বিজয়া’র মুক্তির জন্য। এরইমধ্যে কলকাতার ‘ওবেলা’র সঙ্গে কথা বললেন জয়া আহ্সান। ব্রেকিং নিউজ পাঠকের জন্য সেই সাক্ষাৎকারের চুম্বক অংশ তুলে ধরা হলো।

• ‘ক্রিসক্রস’এ অন্যের নাকচ করা চরিত্র করতে রাজি হলেন কেন?

আমার কাছে যখন চরিত্রটা এসেছিল, তখন সেটার অনেক ঘষা-মাজা হয়ে গিয়েছে। স্ক্রিপ্ট পড়ে মনে হয়েছিল, ছবিটা করা যায়। আর যিনি চরিত্রটা নাকচ করেছেন, তিনি অনেক সিনিয়র অভিনেত্রী। আমার খুব পছন্দেরও। তিনি রাজি না-ই হতে পারেন। তবে সেটা আমার কাছে কোনও সমস্যার বিষয় মনে হয়নি। 

• আপনার প্রযোজিত ‘দেবী’র মুক্তি তো এগিয়ে এল?
(নার্ভাস হাসি) হ্যাঁ। ‘দেবী’ ছাড়াও আরও কিছু ছবির মুক্তি পাওয়ার কথা। 

• আপনার ছবিগুলো কলকাতার মানুষ দেখতে পাবেন?
ইচ্ছে তো ছিল দু’দেশেই মুক্তি পাক ছবিগুলো। কিন্তু এখনও পর্যন্ত সে বিষয়ে খুব একটা কিছু করে উঠতে পারিনি। আসলে দু’দেশের ব্যাপার তো! দুই বাংলা হলে অন্য কথা ছিল। আমার দেশের রাজধানী ঢাকা। এখানে দিল্লি। আর দিল্লিতে যারা বসে আছেন, তারা কেউ বাঙালিদের আবেগ বুঝতে পারবেন না, তাদের বোঝার দায়ও নেই। বুঝলে তো গোটা বিষয়টা অনেক সহজ হয়ে যেত।

• অভিনেত্রী না প্রযোজক, কোন ভূমিকাটা বেশি ভাল লাগছে?
আমি তো ‘দেবী’তে অভিনয়ও করেছি। অভিনয়ের সময়ে সকলকে বলে দিয়েছিলাম, কোনও রকম সমস্যা নিয়ে আমার কাছে যেন একেবারে না আসে। তখন শুধু মাথা ঠান্ডা রেখে অভিনয়টা করার চেষ্টা করেছি। একবারের জন্যও ভাবিনি, আমি প্রযোজক। আসলে দু’টো কাজ একসঙ্গে হয় না।

• আপনার ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে তো দু’দেশেই দারুণ কৌতূহল?
কী করি বলুন! ইট কাম্‌স উইথ দ্য প্যাকেজ।

• খুব তাড়াতাড়ি নাকি আপনার বিয়ে?
সেটাও তো শোনা কথা (হাসি)! গুজব তো গুজবই। এগুলো নিয়ে কী বলব বলুন তো! তবে যখন বিয়ে করব, তখন সেটা নিশ্চয়ই সবাই জানতে পারবেন।

• পাত্র কি পছন্দ হল না?
আসলে বিয়ের কথা সেভাবে এখনও ভাবিনি। একটা ভয় কাজ করে। অনেকদিন ধরে তো স্বাধীনভাবে জীবনযাপন করছি। তাই ভয়টা আরও বেশি। একবার বিয়ে করে যদি, দু’জনের মিল না হয়, তখন কী হবে! আমি চাই, যখন বিয়েটা করব, তখন সেটা ভেবেচিন্তেই করব। বিয়েটা দীর্ঘস্থায়ী হোক, সেটাই আমার সবচেয়ে বড় চেষ্টা থাকবে। তাই ভুল মানুষকে বিয়ে করতে চাই না।
 

ট্যাগ: banglanewspaper জয়া আহসান