banglanewspaper

আলফাজ সরকার আকাশ, শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি: গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার কেওয়া পূর্বখন্ড এলাকার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে উন্মুক্ত স্থানে গ্যালি ইন্ডাস্ট্রিজ নামক ব্যাটারি রিসাইক্লিং কারখানাটি অবশেষে বন্ধ করে দিয়েছে পরিবেশ অধিদপ্তর।

বৃহস্পতিবার এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত হলেও গনমাধ্যমকে জানানো হয় ১৮ আগষ্ট। অধিদপ্তরের নির্দেশে কারখানার সকল কার্যক্রম বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন গাজীপুর পরিবেশ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক আব্দুস সালাম।

এর আগে কারখানার দূষন বন্ধে ৩দফা মানববন্ধন করেন স্থানীয়রা।বিষয়টি নিয়ে উপজেলা প্রশাসন দুইবার ভ্রাম্যমাণ আদালতও পরিচালিত করে। সবর্শেষ কাখানাটিকে ৫০হাজার টাকা জরিমানা করেছিল ভ্রাম্যমাণ আদলত। 

তারপরও পরিবেশ দূষনের হাত থেকে রেহায় মিলছিলোনা স্থানীয়দের। সর্বশেষ একজন আইনজীবী স্বপ্রনোদিত হয়ে ওই কারখানাটি কেন বন্ধ করা হবেনা-জানতে চেয়ে মহামান্য আদালতে রিট করেছিলেন। উচ্চ আদালত রিটের শুনানি শেষে কারখানা সংশ্লিষ্টদের কাছে পরিবেশ দূষণে ক্ষতির পরিমান ও বৈধতা সম্পর্কে জানতে চেয়েছেন। একই সাথে কারখানাটি কেন সরিয়ে নেওয়া হবে না তা জানাতে ৬ সপ্তাহের সময় বেধে দিয়েছে মহামান্য আদালত।

কারখানার দূষন বন্ধে ৩দফা মানববন্ধনের সমন্বয়কারী আনোয়ার হোসেন জানান, কারখানা বন্ধ ঘোষনা করায় প্রশাসনের প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। স্কুলের কোমলমতি শিশুরা আজ থেকে স্বাস্থ্যসম্মত নিশ্বাস পাবে।

গাজীপুর পরিবেশ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক আব্দুস সালাম জানান, উন্মুক্ত স্থানে গ্যালি ইন্ডাস্ট্রিজ নামক ব্যাটারি রিসাইক্লিং কারখানাটি পরিবেশের জন্য মারাত্বক হুমকি। তাই এর কার্যক্রম বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে।

ট্যাগ: Banglanewspaper শ্রীপুর গ্যালি ব্যাটারি