banglanewspaper

একটা সময় ছিল যখন গ্রামগঞ্জে অগ্রহায়ণের আমন ধান ঘরে তুলে মেয়ের বাবা মেয়েকে সুপাত্রের হাতে তুলে ‍দিতেন। কিংবা ছেলেকে বিয়ে করাতেন। আর সেইসব বিয়ের বেশিরভাগই হতো শীত ঋতুতে। এখন সময় পাল্টালেও শীতে বিয়ের রেওয়াজ মোটেই কমেনি। 

কিন্তু চিন্তা আছে বিয়ের সাজসজ্জা নিয়ে। শীতে ত্বকের আর্দ্রতা হারিয়ে ত্বকে আসে রুক্ষ্ম ভাব। কিন্তু বিয়ের কনেকে তো রুক্ষ্ম ত্বক নিয়ে বরপক্ষের সামনে যাওয়া যাবে না। এখন উপায়!

শীতে মৌসুমে তাই বিশেষ পুষ্টি ও আর্দ্রতা যোগান দেবে এমন প্রসাধনী ব্যবহার করা প্রয়োজন, পাশাপাশি চাই সঠিক খাদ্যাভ্যাস। শীতের মৌসুমে হবু বউদের উদ্দেশ্যে কিছু পরামর্শ তুলে ধরা হলো:

বিয়ের আগে ত্বকের বাড়তি যত্ন নিয়ে সবাই বেশ তোড়জোড় শুরু করে দেয়। তবে সুন্দর ত্বক পেতে যত্নের মাত্রা বেড়ে গেলে তা আবার হীতে বিপরীত হতে পারে। বিয়ের অন্তত ছয় সপ্তাহ আগে ত্বকের উপযোগী ট্রিটমেন্ট করানো যেতে পারে।

শীতের শুষ্ক আবহাওয়ায় অনেকের ত্বকেই স্বাভাবিকের তুলনায় কিছুটা কালচে হয়ে যায়। এ ধরনের পরিস্থিতি ত্বকের পরিবর্তিত রংয়ের সঙ্গে মানিয়ে ফাউন্ডেশন বাছাই করতে হবে।

আমাদের দেশে বিয়ে আর কনে মানেই উজ্জ্বল রংয়ের ছড়াছড়ি। তাই মেইকআপটাও হওয়া চাই মানানসই। আর বিয়ের মেইকআপ হতে হবে দীর্ঘস্থায়ী। তাই মুখ ভালোভাবে পরিষ্কার করে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে ভালোমানের এবং ত্বকের জন্য মানানসই প্রাইমার লাগাতে হবে। 

এরপর মূল মেইকআপে যেতে হবে। কখনও স্বাভাবিক গায়ের রংয়ের তুলনায় বেশি হালকা ফাউন্ডেশন বেছে নেওয়া ঠিক নয়। এতে দেখতে অস্বাভাবিক লাগতে পারে।

ফাউন্ডেশন ভেজা স্পঞ্জ দিয়ে ভালোভাবে ত্বকে মিশিয়ে নিতে হবে যেন ভেসে না থাকে। মেইকআপের আগে ত্বকে ভালোভাবে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিলে মেইকআপ বেইস সুন্দরভাবে বসে।  

শীতে ত্বক মলীন হয়ে যায়। ত্বকের উজ্জ্বলভাব ফিরে পেতে নিতে হবে মেইকআপের সাহায্য। ত্বকের উঁচু অংশগুলোতে হাইলাইটার বুলিয়ে নিন। বিয়ের কনেদের সোনালি বা হালাকা গোলাপি শেইডের হাইলাইটারে বেশি ভালো লাগবে। নাকের উপরে, গালের উঁচু অংশে, ঠোঁটের উপরে, থুতনিতে এবং কপালে হালকা করে হাইলাইটার বুলিয়ে নিতে হবে।

আমাদের দেশে কনের সাজে সোনালি আইশ্যাডোর জনপ্রিয়তা নতুন করে বলার অপেক্ষা রাখে না। এছাড়াও লাল, গোলাপি বা পোশাকের রংয়ের সঙ্গে মিলিয়ে সবুজ, বেগুনি বা নীল ইত্যাদিও বেশ মানিয়ে যায়।  

দিনের অনুষ্ঠানে হালকা মেইকআপই উপযোগী। কারণ দিনের অনুষ্ঠানে সাজের ক্ষেত্রে ‘ন্যাচারাল লুক’ ধরে রাখা খুবেই জরুরি। রাতের আয়োজনে ভারী মেইকআপ করা যেতে পারে। 

দিনের সাজে চোখের মেইকআপের জন্য প্যাস্টেল শেইড যেমন: হালকা নীল, হালকা সবুজ, হালকা বেগুনি ইত্যাদি রং বেছে নেওয়া যেতে পারে। সোনালি শিমারের বদলে ব্রঞ্জ বা ম্যাট সিলভার রং বেছে নিতে পারেন।

এছাড়া শীতে ঠোঁটের ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়। ফলে ঠোঁট ফাঁটা বা চামড়া ওঠার সমস্যা দেখা দেয়। এ রকম ঠোঁটে কোনো লিপস্টিকই ভালো লাগবে না। তাই নিয়মিত ঠোঁট স্ক্রাব করে ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করতে হবে। যখনই ঠোঁট শুষ্ক মনে হবে ব্যবহার করতে হবে লিপ বাম।

অতএব উপায় তো জেনে গেলেন। আর চিন্তা কি! এর মনের আনন্দে বিয়ের পিঁড়িতে বসার প্রস্তুতি নিতেই পারেন। 
 

ট্যাগ: bdnewshour24 শীত