banglanewspaper

ফেনী: মোবাইল ফোন বিস্ফোরণ হয়ে স্বপ্নীল মজুমদার (১৭) নামে এক কলেজছাত্র দগ্ধ হয়েছে। রোববার দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। 

ঘটনাটি ঘটে ফেনীর বিসিক শিল্প নগরীর চাড়িপুর এলাকায়। নিহত স্বপ্নীলের বাবা আবদুর রাজ্জাক।

নিহতের ছোট ভাই সজিব জানান, বাবা সুমন মজুমদারকে নিতে ঢাকা আইডিয়াল কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্র স্বপ্নীল মজুমদার ফেনী শহরতলীর চাড়ীপুর এলাকার আমিন মিয়ার বাড়িতে আসে। রোববার বিকেলে নানাবাড়ির একটি কক্ষে মোবাইল ফোন চার্জে দিয়ে ঘুমোতে যায় সে। এ সময় ঘরের লাইট বন্ধ করতে অন্য একটি সুইচ চাপ দিলে বিকট শব্দে মোবাইল ফোনটি বিস্ফোরিত হয়। এতে পুরো ঘরে আগুন ধরে আসবাবপত্র ও কাপড়চোপড়সহ সপ্নীল মজুমদারের শরীরের ৯০ ভাগ দগ্ধ হয়ে যায়।

ইউপি সদস্য মো. বাচ্চু মিয়া জানান, স্বপ্নিল মোবাইল ফোনে চার্জ দিয়ে সুইচ অন করার পর মোবাইলটি বিস্ফোরণ ঘটে। এতে স্বপ্নীল গুরুতর আহত হয়। প্রথমে তাকে ফেনী সদর হাসপাতালে নেয়া হয় পরবর্তীতে অবস্থার অবনতি হলে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

এদিকে ফেনী ফায়ার স্টেশনের ইনচার্জ কবির আহম্মদ জানান, আগুন লাগার তাৎক্ষণিক কোনো কারণ খুঁজে পাওয়া যায়নি। তবে তার ব্যবহৃত মোবাইল হ্যান্ডসেটটি ক্ষত বিক্ষত ছিল। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে মোবাইল বিস্ফোরণেই স্বপ্নীল দগ্ধ হয়।

এদিকে সোমবার দুপুরে নিজবাড়ির সামনে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে বলে পারিবারিক সূত্র জানিয়েছে।

ট্যাগ: bdnewshour24 মোবাইল বিস্ফোরণ কলেজছাত্র