banglanewspaper

সুমন মিয়া ও সেফু মিয়ার সঙ্গে মোগনু মিয়ার কথা কাটাকাটি হয় সিগারেট ভাগ করে খাওয়া নিয়ে। সেই কথা কাটাকাটি গিয়ে পৌঁছায় হাতাহাতিতে। তারপর, এ নিয়ে মারামারি। গাছের ডাল দিয়ে সুমন ও সেফু বেধড়ক পেটায় মোগনুকে।

এরপর, অচেতন অবস্থায় মোগনুকে নিয়ে আসা হয় মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন- মোগনুর মৃত্যু সম্পর্কে স্থানীয় ও পুলিশের ভাষ্য ছিলো এই।

এছাড়াও, মোগনুর মৃত্যু সম্পর্কে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল কর্মকর্তা পলাশ রায় বলেন, অচেতন মোগনুকে হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে জানান।

মৌলভীবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুহেল আহমেদ বলেন, পুলিশ মৃতদেহ মর্গে পাঠিয়েছে। এছাড়াও, পুলিশ প্রাথমিক তদন্তে এই হত্যার পেছনে সুমন ও সেফুর সংশ্লিষ্টতা পেয়েছে।

অভিযুক্ত দুজনকে আটক করা হয়েছে বলেও জানান ওসি।

ঘটনাটি ঘটে গতরাতে (৮ ডিসেম্বর) মৌলভীবাজার সদর উপজেলায়। মৃত মোগনু মিয়ার বয়স ৩৫ বছর। সদর উপজেলার উত্তর জগন্নাথপুর গ্রামের বাসিন্দা এই ব্যক্তি একটি বাড়ির কেয়ারটেকার হিসেবে কাজ করতেন।

ট্যাগ: bdnewshour24 সিগারেট