banglanewspaper

আধুনিক বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চিকিৎসা বিজ্ঞানেরও ব্যাপক উন্নতি হয়েছে। বিশ্বজুড়ে এখন অত্যাধুনিক চিকিৎসার নানামুখি সুযোগ সুবিধা। তবে তামাম দুনিয়ার মানুষের কাছে এখন আতঙ্কের নাম একটিই- ‘ক্যান্সার’। 

কিছু কিছু ক্যান্সারের চিকিৎসা সম্ভব হলেও বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই মরণঘাতক এ রোগটি প্রতিকারের কোনও উপায় নেই। কিন্তু প্রতিরোধ তো করাই যায়। আর সেজন্য নিজেকেই আরও বেশি সাবধানী হতে হবে। 

এমন ৬টি ফলের নাম আজ পাঠকদের জানাবো যেগুলো খেলে ক্যান্সারের ঝুঁকি অনেকটাই কম থাকে। যে ফলগুলো ক্যান্সার প্রতিরোধে সহায়ক।

আপেল: এই ফলটি আমাদের দেশে বারোমাসই পাওয়া যায়। এটি ক্যান্সার প্রতিরোধে সহায়ক হতে পারে।

কিউয়ি: এই ফলটি যে কোনও বড় ফলের দোকানেই পাওয়া যায়। ক্যান্সার প্রতিরোধে এই ফলটি সহায়ক বলে মনে করা হয়।

কমলালেবু: এই ফলটি আমাদের হাতের নাগালেই পাওয়া যায়। বিশেষত, শীতকালে। কমলালেবুও অস্থিমজ্জার ক্যান্সার প্রতিরোধে সহায়ক হতে পারে।

বেদানা বা ডালিম: এই ফলটিও প্রায় সারা বছরই পাওয়া যায়। শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে এবং ক্যান্সার প্রতিরোধে এটি অত্যন্ত কার্যকর।

স্ট্রবেরি: এটি অত্যন্ত সুস্বাদু একটি ফল। আমাদের দেশেও এখন স্ট্রবেরির চাষ করা হয়। বাজারে এই ফলটি অনায়াসেই পাওয়া যায়। ক্যান্সার প্রতিরোধে এই ফলটি সহায়ক বলে মনে করা হয়।
 
আঙুর: আমাদের দেশে এই ফলটি সারা বছরই পাওয়া যায়। ক্যান্সার প্রতিরোধে আঙুর দারুণ সহায়ক ভূমিকা রাখতে পারে বলে মনে করেন চিকিৎসা বিজ্ঞানীরা।

ট্যাগ: bdnewshour24 ক্যান্সার