banglanewspaper

ভারতের রাজনৈতিক দল জামায়াত-ই-ইসলামির (জেইআই)বেশ কয়েকজন নেতাকর্মীর বাসভবন সিলগালা করে দিয়েছে কাশ্মীর কর্তৃপক্ষ। দুদিন আগে ভারতের এ রাজ্যে দলটিকে পাঁচ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়। গত চারদিনে দলটির দুই শতাধিক কর্মীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বৃহস্পতিবার জেইআইকে পাঁচ বছরের জন্য বেআইনি সংগঠন ঘোষণা করে। এদিনই জেইআইয়ের সঙ্গে যুক্ত সমস্ত প্রতিষ্ঠান এবং সম্পত্তি সিলগালা করার আদেশ জারি করা হয়।

ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের অভিযোগ, জেইআইয়ের সঙ্গে জঙ্গি গোষ্ঠীগুলোর ঘনিষ্ঠতা ছিল। এরা জম্মু-কাশ্মীরে বিচ্ছিন্নতাবাদী আন্দোলন বৃদ্ধির পেছনে ভূমিকা রাখতে পারে।

এর আগে ভারতে বাস করে পাকিস্তানি মতাদর্শ ধারণ, পাকিস্তানি অর্থায়নে রাজনীতি ঘোলা করা জম্মু এবং কাশ্মীরে সহ্য করা হবে না বলে জানিয়ে দেয় দেশটির কেন্দ্রীয় সরকার।

তার ধারাবাহিকতায় কঠোর ব্যবস্থা হিসেবে রাজনৈতিক দল হিসেবে জামায়াত ইসলামের রাজনীতি সম্পূর্ণ  নিষিদ্ধ করা হয়েছে। গত দুই সপ্তাহে রাজনৈতিক দল জামায়াতে ইসলামের অনেক নেতাকর্মীকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গত ১৪ ফেব্রুয়ারি পুলওয়ামায় সিআরপিএফ সদস্যদের ওপরে আত্মঘাতী বোমা হামলায় প্রাণ যায় ৪০ জনের বেশি ভারতীয় আধাসামরিক সেনার।

এর জের ধরে গত সোমবার ভোররাতে নাগাদ ভারতের ১২টি মিরেজ ২০০০ যুদ্ধবিমান পাকিস্তানের কথিত জঙ্গি ঘাঁটি লক্ষ্য করে লেজার নিয়ন্ত্রিত এক হাজার কেজি বোমাবর্ষণ করে। ফলশ্রুতিতে পাকস্তানও পাল্টা বিমান হামলা চালায় ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরে। এরইমধ্যে বিমান হামলা চালাতে গিয়ে পাকিস্তানে আটক হন ভারতীয় বৈমানিক অভিনন্দন বর্তমান। তাকে শুক্রবার ফেরত দিয়েছে পাকিস্তান।

এ হামলার পর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সভাপতিত্বে নিরাপত্তা সম্পর্কিত উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক শেষে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বেআইনি কার্যকলাপ (প্রতিরোধ) আইনের অধীনে জামায়াত-ই-ইসলামির কার‌্যক্রম পাঁচ বছরের জন্য নিষিদ্ধের সিদ্ধান্ত নেয় ভারত।

তবে এ নিয়ে জম্মু কাশ্মীরের প্রধান দুই রাজনৈতিক দল- পিপলস ডেমোক্রেটিক পার্টি (পিডিপি) এবং ন্যাশনাল কনফারেন্স (এনসি) কেন্দ্রীয় পদক্ষেপের সমালোচনা করেছে।

পিডিপির প্রধান মেহবুব মুফতি বলেন, ‘জামায়াত-ই-ইসলামিকে নিয়ে সরকারের এত অস্বস্তি কেন? মৌলবাদী হিন্দু গোষ্ঠীগুলো আসলে ভুল তথ্য ছড়িয়ে পরিস্থিতিকে বিকৃত করে ফেলছে। অথচ কাশ্মীরিদের জন্য নিঃস্বার্থভাবে কাজ করে, এমন একটি প্রতিষ্ঠানকেই নিষিদ্ধ করা হচ্ছে।’

আর ন্যাশনাল কনফারেন্সের সাধারণ সম্পাদক আলী মোহাম্মদ সাগরও কেন্দ্রের এ সিদ্ধান্তে বিরক্ত। তিনি নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার দাবি জানিয়ে বলেন, এ সিদ্ধান্ত রাজ্যের শান্তি ফিরিয়ে আনার প্রক্রিয়ার প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করবে।

ঢাকাটাইমস/০২মার্চ/ডিএম

ট্যাগ: bdnewshour24 কাশ্মীর