banglanewspaper

মশিউর রহমান মাসুম, মোরেলগঞ্জ: বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে মা-বাবার কোলের মধ্য হতে চুরি করে নেওয়া আড়াই মাসের শিশু আব্দুল্লাহ্র মরদেহ ৭ দিন পরে উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ রবিবার বেলা ১২ টার দিকে বিশারীঘাটা গ্রামের কাচারি বাড়ি এলাকার আব্দুর রহমান শিকারীর লিজ দেওয়া মৎস্য ঘেরের টয়লেটের মধ্য হতে উদ্ধার করা হয়।

শিশু আব্দুল্লাহকে চুরির ঘটনার মূল হোতা গুলিশাখালী গ্রামের হৃদয় চাপরাশী(২০) এর স্বীকারোক্তি ও দেখানো মতে থানা পুলিশ টয়লেটের স্লাব তুলে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে। মোরেলগঞ্জ সাকের্লের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. রিয়াজুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. কামরুজ্জামান, সহকারি কমিশনার(ভূমি) মো. মেজবাহ উদ্দিন, থানার ওসি কেএম আজিজুল ইসলাম, বাগেরহাট জেলা ডিবি পুলিশের ওসি মো. রেজাউল ইসলাম এ সময় উপস্থিত ছিলেন। 

শিশু আব্দুল্লাহ্র লাশ উদ্ধারের পরে তার পিতা বিশারীঘাটা গ্রামের মো. সোহাগ হাওলাদার পরণের কাপড় দেখে সন্তানের লাশ সনাক্ত করেন। এ সময় এলাকার শতশত উৎসুক জনতা ঘটনাস্থলে ভীড় করেন। 

প্রসঙ্গত, গত রবিবার দিবাগত রাত ৩ টার দিকে বিশারীঘাটা গ্রামের সোহাগ হাওলাদারের আড়াই মাস বয়সী ছেলে আব্দুল্লাহকে জানালার গ্রিল খুলে ঘুমন্ত মা-বাবার বিছানা থেকে চুরি করে নিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা। পরে মোবাইল ফোনে দশ লাখ টাকা মুক্তিপন দাবি করে। ঘটনার পর থেকে থানা পুলিশ, ডিবি পুলিশ ও পিবিআই’র কয়েকটি টিম অভিযানে নামে।

পর্যায়ক্রমে পুলিশ এ চক্রের ৬জনকে আটক করে এবং একটি মোটর সাইকেল জব্দ করে। সর্বশেষ শনিবার বিশেষ প্রযুক্তি ব্যবহার করে পিবিআই’র একটি দল ঢাকা থেকে হৃদয় চাপরাশীকে আটক করে। তার স্বীকাােক্তি অনুযায়ী আজ পুলিশ শিশু আব্দুল্লাহ্র লাশ উদ্ধর করে।

ট্যাগ: bdnewshour24 গ্রিল শিশু চুরি