banglanewspaper

সড়কে যত্রতত্র পার্কিং, লক্কর ঝক্কর রঙচটা, রুট পারমিট ও কাগজপত্র হালনাগাদ না থাকাসহ ট্রাফিক আইন লঙ্ঘনের অভিযোগে ৩৩৮টি বাসের বিরুদ্ধে মামলা করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) ট্রাফিক বিভাগ।

ট্রাফিক শৃঙ্খলা সপ্তাহ উপলক্ষে শুক্রবার (২২ মার্চ) দিনব্যাপী রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় পরিচালিত অভিযানে এই মামলা করা হয়।

শুক্রবার দুপুরে ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশনস বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিসি) মো. মাসুদুর রহমান ট্রাফিক বিভাগের বরাতে জানান, কাগজপত্র ও ফিটনেসজনিত ক্রটির কারণে ৩১৮টি বাসের বিরুদ্ধে প্রসিকিউশন দাখিল এবং ২০টি বাস ডাম্পিংয়ে প্রেরণ করা হয়েছে।

এর মধ্যে ট্রাফিক পূর্ব বিভাগ ১২২টি, ট্রাফিক পশ্চিম বিভাগ ৪২টি, ট্রাফিক উওর বিভাগ ৮৯টি ও ট্রাফিক দক্ষিণ বিভাগ ৬৫টি বাসের বিরুদ্ধে প্রসিকিউশন দাখিল করে। এছাড়া ট্রাফিক পূর্ব বিভাগ ২টি, ট্রাফিক পশ্চিম বিভাগ ১৬টি ও ট্রাফিক দক্ষিণ বিভাগ ২টি ডাম্পিংয়ে প্রেরণ করে।

অন্যদিকে রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় ট্রাফিক আইন অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়ে ৩০ লাখ ৯৪ হাজার ৩শ টাকা জরিমানা করেছে ট্রাফিক বিভাগ। এ সংক্রান্ত ৫ হাজার ৮শ ৪৬টি মামলা করা হয়েছে। এছাড়াও অভিযানকালে ২৫টি গাড়ি ডাম্পিং ও ৮৫৯টি গাড়ি রেকার করা হয়েছে।

ডিএমপির ট্রাফিক বিভাগ সূত্রে জানায়, উল্লেখযোগ্য মামলার মধ্যে রয়েছে হাইড্রোলিক হর্ণ ব্যবহার করার দায়ে ১৫৮টি, হুটার ও বিকনলাইট ব্যবহার করার জন্য ৪টি, উল্টোপথে গাড়ি চালানোর কারণে ১ হাজার ২৯৪টি গাড়ির বিরুদ্ধে মামলা, মাইক্রোবাসে কালো গ্লাস লাগানোর জন্য ১১টি গাড়ির বিরুদ্ধে মামলা, ট্রাফিক আইন অমান্য করার কারণে ২ হাজার ৯২টি মোটর সাইকেলের বিরুদ্ধে মামলা ও ৭৩টি মোটর সাইকেল আটক করা হয়। সেইসঙ্গে গাড়ি চালানোর সময় মোবাইল ফোন ব্যবহারের অপরাধে চালকের বিরুদ্ধে ১১টি মামলা করা হয়।

এর আগে বৃহস্পতিবার রাজধানীতে ট্রাফিক আইন অমান্য করায় ৩৪৪টি বাসের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করে পুলিশের ট্রাফিক বিভাগ। কাগজপত্র ও ফিটনেসজনিত ক্রটির কারণে ৩২৭টি বাসের বিরুদ্ধে প্রসিকিউশন দাখিল এবং ১৭টি বাস ডাম্পিংয়ে প্রেরণ করে।

ট্যাগ: bdnewshour24 ট্রাফিক আইন অমান্য