banglanewspaper

লালমনিরহাট প্রতিনিধি: লালমনিরহাটে বৈশাখী শাড়ি না পাওয়ায় মায়ের সঙ্গে অভিমান করে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে সৃষ্টি রানী রায় (১৩) নামে এক স্কুলছাত্রী।

গত রোববার রাতে জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার মৌজা শাখাতী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। গতকাল সোমবার সকালে তার মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য লালমনিরহাট মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিহত সৃষ্টি রানী উপজেলার মৌজা শাখাতী গ্রামের শিপন চন্দ্র রায়ের মেয়ে। সে স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ে ষষ্ঠ শ্রেণিতে পড়তো।

স্থানীয়রা জানান, রোববার সৃষ্টি রানী রায় তার মায়ের কাছে বৈশাখী শাড়ির বায়না ধরে। তার মা পরিমিতা রানী শাড়ি কিনে না দিয়ে বাপের বাড়ি চলে যান। বাবা শিপন চন্দ্র রায় কবুতরের ওষুধ কেনার জন্য চামটারহাটে যান। বাড়ি কেউ না থাকার সুযোগে রাতে সৃষ্টি রানী ঘরের ভেতর গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে।

এ ব্যাপারে কালীগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) আনোয়ার হোসেন জানান, কালীগঞ্জ থানায় একটি ইউডি মামলা হয়েছে। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য লালমনিরহাট মর্গে পাঠানো হয়েছে।

ট্যাগ: bdnewshour24 কালীগঞ্জ বৈশাখী