banglanewspaper

যশোরের গরু ব্যবসায়ী ইয়াহিয়া মোল্লা তার ষাড়ের নাম রেখেছেন পালসার বাবু। এই নামেই তাকে ডাকেন সবাই। ষাঁড়টির বর্তমান বাজারমূল্য ১২ লাখ টাকা। এই ষাঁড়টি কিনলে উপহার হিসেবে মিলবে একটি পালসার বাইক।

জানা গেছে, যশোরের মণিরামপুর উপজেলার ইত্যা গ্রামের গরু ব্যবসায়ী ইয়াহিয়া মোল্লা ও স্ত্রী মনোয়ারা বেগম শখ করে ষাঁড়টি পুষছেন। তিন বছর ধরে পোষা পশুটিকে এবারের কোরবানিতে বিক্রি করতে চান।

লোকমুখে পালসার বাবুর সঙ্গে উপহার হিসেবে বাইকের কথা শুনে ষাঁড়টিকে দেখতে ইয়াহিয়ার বাড়িতে ভিড় করছেন উৎসুক জনতা। বিভিন্ন এলাকা থেকে পালসার বাবুকে দেখার জন্য ভিড় করছেন মানুষ।

পালসার বাবুকে দেখতে আসা ইনতাজ আলী বলেন, এতবড় গরু জীবনে এই প্রথম দেখলাম।

ইয়াহিয়ার স্ত্রী মনোয়ারা বেগম বলেন, রোজার ঈদের পর থেকে গরু দেখতে বাড়িতে লোকজন আসা শুরু করেছে। গত দশ দিন ধরে মানুষের ভিড় বেড়েছে। বিকেল হলে উঠোনে লোক ভরে যায়।

ইয়াহিয়া বলেন, আমি ছোটখাটো ব্যবসায়ী। ১৯৯৬ সাল থেকে প্রতিবছর একটা করে বড়ান জাতের (শংকর) গরু পুষে আসছি। বছর তিনেক আগে ‘হলেস্টিয়ান’ জাতের এই গরুটা কেনা। শখ করে ওর নাম দিয়েছি ‘পালসার বাবু’। গত বছর এর দাম সাড়ে পাঁচ লাখ উঠলেও বিক্রি করিনি। কিছুদিন আগে ঢাকার এক ক্রেতা সাড়ে আট লাখ দাম বলেছে। তবে আমি এর জন্য চাচ্ছি ১২ লাখ টাকা। এই দাম পেলে ক্রেতাকে খুশি হয়ে পালসার মোটরসাইকেল উপহার দেব।

ট্যাগ: bdnewshour24 মোটরসাইকেল গরু