banglanewspaper

স্ক্র্যাচ ক্যাম্প শেষে এবার অনুষ্ঠিত হচ্ছে জাতীয় শিশু-কিশোর প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতার পাইথন ক্যাম্পের চূড়ান্ত পর্ব।

রোববার (১৪ জুলাই) সাভারে শেখ হাসিনা জাতীয় যুব উন্নয়ন ইনস্টিটিউটে অনুষ্ঠিত প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা পাইথন ক্যাম্প পরিদর্শন করেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। অনুষ্ঠানে তিনি চূড়ান্ত প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।

তথ্যপ্রযুক্তির উদ্ভাবনী প্রতিভা বিকাশে প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতাকে মন্ত্রী একটি ঐতিহাসিক মাইল ফলক হিসেবে উল্লেখ করে বলেন, 'ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণের লক্ষ্যে ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে তথ্য প্রযুক্তিতে আরো দক্ষ করে গড়ে তুলতে দ্বিতীয়বারের মতো আয়োজন করা হলো এ প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতা।' 

প্রতিযোগিতায় সিনিয়র ও জুনিয়র ক্যাটাগরিতে ৬৪ জেলা থেকে নির্বাচিত ১২৮ জন মাধ্যমিক পর্যায়ের প্রোগ্রামার অংশ নিয়েছেন।

এর আগে, গত ১৮ ও ১৯ জুন প্রশিক্ষণ শেষে ২০ জুন পাইথন জেলাভিত্তিক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। এতে অংশ নেয় ৬ষ্ঠ থেকে ১০ম শ্রেণির প্রায় ১৫ হাজার প্রতিযোগী।

এবার পাইথনে সদ্য পাসকরা এসএসসি পরীক্ষার্থীরাও অংশগ্রহণের সুযোগ পেয়েছে। জাতীয় ক্যাম্পের প্রথম পর্যায়ে বুধবার (১০ জুলাই) থেকে শুরু হয় খুদে প্রোগ্রামারদের স্ক্র্যাচ প্রশিক্ষণ। এতে অংশ নেয় ১ম থেকে ৫ম শ্রেণির ৬৪টি দল। প্রশিক্ষণ শেষে বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) অনুষ্ঠিত হয় স্ক্র্যাচ চূড়ান্ত প্রতিযোগিতা।

এ দিন মন্ত্রী খুদে প্রোগামারদের দেখতে সাভারে শেখ হাসিনা জাতীয় যুব উন্নয়ন ইনস্টিটিউটে স্ক্র্যাচ ক্যাম্প পরিদর্শন করেন এবং খুদে প্রোগ্রামারদের সাথে কিছু সময় অতিবাহিত করেন।

‘অবাক হচ্ছে বিশ্ব এবার, বাংলার শিশুরা প্রোগ্রামার’ শিরোনামে প্রতিযোগিতার আয়োজক ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়াধীন আইসিটি বিভাগ এবং ইয়াং বাংলা। 

ট্যাগ: bdnewshour24 মোস্তাফা জব্বার