banglanewspaper

এস, এম, আশরাফুল হক রুবেল, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি: বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেছেন কুড়িগ্রাম, লালমনিরহাট, গাইবান্ধাসহ উত্তারাঞ্চলের মানুষ বন্যা কবলিত হয়ে অবর্ণনীয় দুর্ভোগের মধ্যে রয়েছে। মানুষের দুর্ভোগ কমাতে আমরা বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ও সরকার একযোগে কাজ করে যাচ্ছি। কোন মানুষ না খেয়ে থাকবে না। বন্যার পানি নেমে যাওয়ার পর মানুষ রোগব্যাধীর যে কঠিন সময় আসছে তা মোকাবেলা করার জন্য সংশ্লিষ্ট বিভাগগুলোকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। বন্যা পরবর্তী সময়ে ক্ষতিগ্রস্থদের পুর্ণবাসনের ব্যবস্থা করা হবে।

এসময় তিনি আরো বলেন, বন্যা পরিস্থিতি মোকাবেলায় আমি অনুরোধ করবো অন্যান্য সাহায্য সংস্থা ও রাজনৈতিক দলগুলো যাতে এই বন্যার্তদের সাহায্যে এগিয়ে আসে। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনক হলো একটি দল যারা রাজনৈতিক ও সামাজিক দায়িত্ব পালন না করে তারা শুধু সরকারের সমালোচনা করে পদত্যাগ দাবী করে কিন্তু বানভাসী মানুষজনের সাহায্যে এগিয়ে আসেনা। তিনি এসময় সবাইকে বানভাসী মানুষের সাহায্যে এগিয়ে আসার আহবান জানান।

তিনি সোমবার দুপুরে কুড়িগ্রামের চিলমারী ও উলিপুর উপজেলার বন্যার্তদের মাঝে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ ও প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে ত্রাণ বিতরণকালে এসব কথা বলেন। এসময় তার সাথে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল, স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা: রোকেয়া সুলতানা, কুড়িগ্রাম-৪ আসনের সংসদ সদস্য,  প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো: জাকির হোসেন, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মো: জাফর আলী, জেলা প্রশাসক সুলতানা পারভীন,পুলিশসুপার মোঃ মহিবুল ইসলাম খান,চিলমারী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শওকত আলী বীরবিক্রম প্রমুখ। 

পরে তারা চিলমারী ও উলিপুরের বন্যা কবলিত আর ও কয়েকটি এলাকার মানুষজনের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরন করেন।

ট্যাগ: bdnewshour24