banglanewspaper

ডেঙ্গু সনাক্তকরণ রক্ত পরীক্ষা নিয়ে প্রতারণার অভিযোগে ইবনে সিনা ডায়াগনস্টিক এন্ড ইমেজিং সেন্টারের কনসালটেন্ট প্রফেসর (অব.) কর্নেল মো. মনিরুজ্জামানসহ চারজনের বিরুদ্ধে ঢাকা সিএমএম আদালতে একটি মামলা হয়েছে।

মঙ্গলবার ঢাকা জজ কোর্টের আইনজীবী মো. রমজান আলী সরকার ওরফে রানা সরদার মামলাটি করেন। ঢাকা মহানগর হাকিম মো. দিদার হোসাইন বাদীর জবানবন্দি গ্রহণ শেষে পরে আদেশ দিবেন বলে জানিয়েছেন।

মামলার অপর আসামিরা হলেন, ধানমন্ডিস্থ ইবনেসিনা ডায়াগনস্টিক এন্ড ইমেজিং সেন্টারের ব্যবস্থাপনা পরিচালক, ইবনে সিনা গ্রুপের চেয়ারম্যান ও ইবনে সিনা হাসপাতালের চেয়ারম্যান।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, বাদী গত ২৫ জুলাই প্রচণ্ড জ্বর নিয়ে ধানমন্ডি সাতমসজিদ রোডের ইবনে সিনা ডায়াগনস্টিক এন্ড ইমেজিং সেন্টারে ডেঙ্গু শনাক্তকরণ রক্তের ডেঙ্গু এনএসআই এজি ও সিবিসি পরীক্ষা করতে দেন। পরদিন ২৬ জুলাই রিপোর্ট সংগ্রহ করে দেখতে পান রক্তের প্লাটিলেট লেভেল ৭ লাখ ৮৪ হাজার সিএমএম।

প্লাটিলেট লেভেল স্বাভাবিক থেকে অনেক বেশি হওয়ায় বাদী ভেঙে পড়েন। পরে বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার পর একইদিন ধানমন্ডিস্থ বাংলাদেশ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রক্তের সিবিসি পরীক্ষা করেন। সেখানকার রিপোর্টে রক্তের প্লাটিলেট লেভেল ২ লাখ আসে যা ছিল স্বাভাবিক লেভেল।

মামলায় বলা হয় ইবনে সিনার প্রতারণামূলক ভুল রিপোর্টের ভিত্তিতে বাদী ওষুধ সেবন করলে শারীরিক, মানসিক ও অর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হতেন এবং জীবননাশেরও সম্ভাবনা ছিল।

ট্যাগ: bdnewshour24 ইবনে সিনা