banglanewspaper

বিশ্বানাথ রায়, ফুলবাড়ী (কুড়িগ্রাম) প্রতনিধি: বাংলাদেশ-ভারত ছিটমহল বিনিময়ের চার বছর পূর্তি ও পঞ্চম বর্ষে পদার্পণ উপলক্ষ্যে বুধবার (৩১ জুলাই) রাতে কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার বিলুপ্ত ছিটমহল দাসিয়ারছড়ায় বর্নীল অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

দিবসটি পালনের লক্ষ্যে কালিরহাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত হয় আলোকসজ্জ্বা,আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

বিলুপ্ত ছিটমহলবাসী ৬৮টি মোমবাতি জ্বালিয়ে ছিটমহল বিনিময়ের বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা করেন। ২০১৫ সালের ৩১ জুলাই মধ্য রাতে বাংলাদেশ-ভারত মুজিব-ইন্দিরা সীমান্ত চুক্তি’র বাস্তাবায়ন করেন বর্তমান সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ওই দিন বাংলাদেশের অভ্যন্তরে থাকা ভারতীয় ১১১টি ছিটমহল এবং ভারতের অভ্যন্তরে বাংলাদেশের ৫১ টি ছিটমহল দুই-দেশের ভু-খন্ডে যুক্ত হয়। নাগরিকরা হয়ে যান স্বাধীন। দীর্ঘ ৬৮ বছরের ব নার পর ১৬২টি ছিটমহল বিনিময় হওয়ায় বন্দি দশা থেকে মুক্তি লাভ করে নাগরিকরা। মোমবাতি প্রজ্জ্বলন শেষে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পন করা হয়।  এছাড়াও বাঙ্গালীর ঐতিহ্যবাহী হা-ডু-ডু ও লাঠি খেলা, মসজিদে মিলাদ মাহফিল, মন্দিরে বিশেষ প্রার্থনা সহ দাসিয়ারছড়ার প্রতিটি বাড়িতে আয়োজন করা হয় নানারকম অনুষ্ঠানের । 

বর্ষপূর্তির এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন কুড়িগ্রাম জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ মো. জাফর আলী।

এসময় উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি শাহজাহান মিয়া বাদশা, সাধারন সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান গোলাম রব্বানী সরকার,সাবেক ভারত-বাংলাদেশ ছিটমহল বিনিময় সমন্বয় কমিটির দাসিয়ারছড়া ইউনিটের আহবায়ক আলতাফ হোসেন, উপজেলা যুবলীগের সাধারন সম্পাদক আবুবক্কর সিদ্দিক মিলন,ছাত্রলীগ সভাপতি এমদাদুল হক উপস্থিত ছিলেন। 

ট্যাগ: bdnewshour24 ফুলবাড়ী কুড়িগ্রাম