banglanewspaper

আলফাজ সরকার আকাশ, শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি: গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি জাকিরুল হাসান জিকুর (৩০) ওপর দ্বিতীয় দফায় হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে তিনি গুরুতর আহত হয়েছেন। আহত জিকু উত্তরার আধুনিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন বলে জানিয়েছে তার পরিবার।

বৃহস্পতিবার (২৯ আগস্ট) সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় শ্রীপুর সবুজবাগ (পাইলট সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন) এলাকায় তিনি হামলার শিকার হন। হামলাকারী সবাই যুবলীগ ও ছাত্রলীগের কর্মী বলে জানা গেছে।

এ ঘটনায় আহত জিকুর চাচা মঞ্জুর আলম বাদী হয়ে শুক্রবার বিকালে  ১৯ জনের নাম ও অজ্ঞাত ১০/১২ জনকে অভিযুক্ত করে চাঁদা দাবির অভিযোগে শ্রীপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। এছাড়াও এ ঘটনায় পুলিশ চারজনকে গ্রেফতার করেছে বলে নিশ্চিত করেন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) লিয়াকত আলী। 

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- শ্রীপুর পৌরসভার কলেজপাড়া এলাকার আবুল কাশেমের ছেলে হাবিবুর রহমান জুয়েল (৪০), শান্তিবাগ এলাকার জাহাঙ্গীরের ছেলে মারুফ (১৫), ডোয়াইবাড়ী গ্রামের সফির উদ্দিনের ছেলে রাসেল (৩৮) ও আবুল মণ্ডলের ছেলে মাসুম মণ্ডল (২৮)।

গ্রেফতারকৃতদের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা যায়,  বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে ছাত্রলীগ সভাপতি জাকিরুল হাসান জিকু তার বাসা থেকে বের হয়ে স্কুলের পাশ দিয়ে সবুজ বাগ এলাকায় যাচ্ছিলেন। এ সময় অভিযুক্তরা দা, লাঠি, ছোরা, লোহার রড ও দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে তার ওপর অতর্কিত হামলা করে নগদ ৮০ হাজার টাকা ও একটি মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়।

এ সময় তাদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে জিকু রক্তাক্ত জখম হন। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসার পর উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকার উত্তরার আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বর্তমানে তিনি ওই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এরআগে জাকিরুল হাসান জিকু গত ২৩ আগস্ট সন্ধ্যা ৭টার দিকে শ্রীপুর রেলস্টেশন চত্বরে প্রথম দফা হামলার শিকার হন। ওই সময়ে তিনি বাদী হয়ে শ্রীপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

চাঁদা দাবির অভিযোগে দায়ের করা ওই মামলাটি প্রত্যাহার করতে গত বৃহস্পতিবার তার ওপর এ হামলা চালানো হয়েছে বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়।

শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) লিয়াকত আলী জানান, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি জাকিরুল হাসান জিকুর ওপর হামলায় জড়িত ৪ জনকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। এ মামলার  অন্য আসামিদের গ্রেফতার করতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলেও জানান তিনি ।

গাজীপুর জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি জাহিদুল আলম রবিন জানান, পরপর ছাত্রলীগের সভাপতির ওপর এমন হামলায় নেকাকর্মীদের মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। তাই আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি দাবি, সকল আসামিদের দ্রুত গ্রেফতার করে আইনের হাতে তুলে দিয়ে শ্রীপুরের সুষ্ঠু পরিবেশ ফিরিয়ে আনার।

স্থানীয় সংসদ সদস্য ইকবাল হোসেন সবুজ বলেন, ছাত্রলীগ সভাপতির ওপর হামলার ঘটনাটি শুনেছি।  আমি এ হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই। ইতিমধ্যে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে এ ঘটনার সাথে জড়িত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য বলেছি।

প্রসঙ্গত, গত ২৩ আগস্টের হামলায় ছাত্রলীগ সভাপতি জাকিরুল হাসান জিকুসহ উপজেলা ছাত্রলীগের ৩ জন ও প্রতি পক্ষের ৪জনসহ মোট ৭জন  আহত হয়েছিল।

ট্যাগ: bdnewshour শ্রীপুর