banglanewspaper

দিনাজপুরে ঘোড়া জবাই করে মাংস বিক্রির দায়ে এক স্কুলশিক্ষকসহ দুইজনকে কারাগারে পাঠিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

এছাড়া একজনের অর্থদণ্ড করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে বিরল উপজেলার রানীপুকুর ইউনিয়নের কাজিপাড়া গ্রামে।

শুক্রবার সন্ধ্যায় ভ্রাম্যমাণ আদালত তাদের তিনজনকে জেল-জরিমানা দেন।

দণ্ডিতরা হলেন- বিরল উপজেলার কাজীপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ও ১০ নং রানীপুকুর ইউনিয়নের কাজিপাড়া গ্রামের বাসিন্দা শফিকুল ইসলাম, একই গ্রামের আব্দুল গণির ছেলে আব্দুল কাইয়ুম এবং আব্দুল গণির ছেলে রায়হান।

বিরল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এটিএম গোলাম রসুল ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, শুক্রবার সকালে বিরলের কাজীপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক শফিকুল ইসলাম ও একই গ্রামের আব্দুল গণির ছেলে আব্দুল কাইয়ুম একটি ঘোড়া জবাই করেন।

এরপর নিজেরা ওই ঘোড়ার কিছু মাংস রেখে বাকি মাংস দুইশ টাকা কেজি দরে বিক্রি করেন। ঘটনাটি বিরল প্রেসক্লাবের সভাপতি আব্দুল কুদ্দুস ফেসবুকে দিলে মুহূর্তের মধ্যে খবরটি ছড়িয়ে পড়ে।

পরে দুপুরে অভিযান চালিয়ে রায়হানকে এবং সন্ধ্যায় অপর দুইজনকে আটক করা হয়। সন্ধ্যার দিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এ বি এম রওশন কবীর পশু জবাই আইনে তাদের সাজা দেন।

এর মধ্যে কাইউম আর শফিকুলকে ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড এবং রায়হানকে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে এক বছর কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

ট্যাগ: Bdnewshour24