banglanewspaper

সড়কের শৃঙ্খলা ফিরিয়ে নিরাপদ সড়ক বাস্তবায়নে সাবেক নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খানের নেতৃত্বে কমিটি যে ১১১ দফা প্রস্তাবনা দিয়েছিলো তাতে সামান্য কিছু সংশোধনী এনেছে  জাতীয় সড়ক নিরাপত্তা কাউন্সিল। আর এ প্রস্তাবনা বাস্তবায়নে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান প্রধান করে গঠন করা হয়েছে ২০ সদস্যের শক্তিশালী টাস্কফোর্স। 

বৃহস্পতিবার  ( ৫ সেপ্টেম্বর) বনানীস্থ বিআরটিএ ভবনে জাতীয় সড়ক নিরাপত্তা কাউন্সিলের ২৭তম সভা শেষে এ তথ্য জানিয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। 

ওবায়দুল কাদের বলেন, শাজাহান খানের নেতৃত্বে যে কমিটি গঠন করে দেওয়া হয়েছিলো সমান্য কিছু সংশোধনী দিয়ে প্রস্তাবনা গুলো গ্রহণ করা হয়েছে।  প্রস্তাবনা গুলো বাস্তবায়নে আমরা একটি শক্তিশালী টাস্কফোর্স গঠন করেছি। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এটার প্রধান থাকবেন। আমাদের সড়ক বিভাগের যে সচিব তিনি সদস্য সচিবের দায়িত্ব পালন করবেন এবং এছাড়া সড়কের সঙ্গে যে সংগঠন ও সংস্থা গুলো জড়িত তাদের সদস্যরাও এ টাস্কফোর্সে থাকবেন।

সড়কমন্ত্রী আরও বলেন, প্রস্তাবনা গুলো বাস্তবায়নে একটি শক্তিশালী টাস্কফোর্সের প্রয়োজন, সেটাই আমরা করেছি। এছাড়া একনেক আমাদের গুরুত্বপূর্ণ প্রস্তাবনার অনুমোদ করেছে। মহাসড়কে বিশ্রামাগার তৈরীর যে বিষয়টি ছিলো সেটা একনেকে অনুমোদন হয়েছে।  ওভার লোডের জন্য সড়কের যে ক্ষয়-ক্ষতি হচ্ছে ২৮টি এক্সসেল লোড স্টেশন নতুন করে নির্মান করা হবে। 

এসময় সড়কে সক্ষমতা বাড়ানোর বিষয়টি তুলে ধরে বলেন, সড়কে যে ইঞ্জিনিয়ারিং প্রোবলেম আমরা এতোদিন ফেস করে আসছিলাম সেটা সমাধানের একটা জায়গায় আমরা এসেছি। এছাড়া ঢাকা-সিলেট রোডে চার লেন করার যে দবি অনেক দিনের, সে কাজটাও শুরু হবে কিছু দিনের মধ্যে। এখানে অর্থায়ন করবে এডিবি, গতকালই তারা এটা আমাদের জানিয়েছে। এছাড়া, ফরিদপুর-বরিশাল এবং এলেঙ্গা-রংপুর ফোর লেনের রাস্তার কাজ আমরা শুরু করতে যাচ্ছি।
 

ট্যাগ: bdnewshour24 স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী