banglanewspaper

পিরোজপুর প্রতিনিধি : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলায় এক কলেজ ছাত্রীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে ধর্ষণ করে তার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ এ ঘটনায় অভিযুক্ত কলেজ ছাত্র আব্দুল্লাহ আল মুবিনকে গ্রেফতার করেছে।

শুক্রবার পিরোজপুর ডিবি পুলিশের একটি দল খুলনা থেকে মুবিনকে আটক করে মঠবাড়িয়া থানায় সোপর্দ করেছে। গ্রেপ্তারকৃত আব্দুল্লাহ আল মুবিন(১৯) মঠবাড়িয়া উপজেলার সাফা বাজারের নবী হোসেন মেকারের ছেলে। সে খুলনা পাবলিক কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্র।

এ ঘটনায় ওই কলেজ ছাত্রীর বাদী হয়ে শুক্রবার আব্দুল্লাহ আল মুবিনসহ ৭ জনকে আসামি করে নারী ও শিশু নির্যাতন এবং তথ্যপ্রযুক্তি আইনে  মামলা দায়ের করেছে। 

মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ সৈয়দ আব্দুল্লাহ ফোনে জানান, মঠবাড়িয়া উপজেলার সাফা বাজারের নবী হোসেন মেকারের ছেলে মুবিন সাফা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে লেখাপড়া করার সময় একই ক্লাশের ওই ছাত্রীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক হয়। এর পর গত ২০১৮ সালের ১ এপ্রিল থেকে ২০১৯ সালের ১৫ জুলাই পর্যন্ত ওই ছাত্রীর বাসায় একাধিকবার তাদের মধ্যে শারীরিক সম্পর্ক করে। এ শারীরিক সম্পর্কের অশ্লীল ভিডিও মোবাইলে ধারণ করে সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয় অভিযুক্ত। ওই স্কুল ছাত্রীর বাবা বাদি হয়ে শুক্রবার আব্দুল্লাহ আল মুবিনসহ ৭ জনকে আসামি করে নারী ও শিশু এবং তথ্যপ্রযুক্তি আইনে মামলা করে।

মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ সৈয়দ আব্দুল্লাহ আরো জানান, গ্রেপ্তারকৃত কলেজ ছাত্র মুবিনকে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে অন্য আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

ট্যাগ: bdnewshour24 পিরোজপুর