banglanewspaper

নাজমুস সাকিব মুন, পঞ্চগড় প্রতিনিধিঃ অক্টোবরে অনুষ্ঠিত হবে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের বৃহৎ ধর্মীয় অনুষ্ঠান দূর্গা পূজা। সারা দেশেই তাই প্রতিমা গড়তে কারিগররা ব্যস্ত সময় পার করছেন।

পঞ্চগড়েও সনাতন ধর্মাবলম্বীদের মধ্যে পূজার পূর্ব প্রস্তুতি চলছে বেশ ধুমধামে। তবে দূর্গা পূজার পূর্বে পঞ্চগড়ে প্রতিমা ভাঙ্গচুরে বেশ চিন্তিত সনাতন ধর্মাবলম্বীরা।

পঞ্চগড়ের কালীমন্দির থেকে দুটি প্রতিমার মাথা ভেঙে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সদর উপজেলার মাগুড়া ইউনিয়নের গেদিপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, সকালে ভক্তরা পূজার জন্য এসে দেখেন শিব ও কালী প্রতিমার মাথা ভেঙে মন্দিরের বাইরে ফেলে রাখা হয়েছে। মাথা দুটোও সেখানে ছিল না। স্থানীয়দের ধারণা, রাতের কোনো এক সময়ে এ ঘটনা ঘটানো হয়েছে। খবর পেয়ে লোকজন ঘটনাস্থলে ভিড় করে। পরে পুলিশে খবর দেয়া হয়। সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের নেতারাও ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

স্থানীয় দীলিপ চন্দ্র রায় বলেন, ‘প্রতিবেশী গ্রামের মুসলমানরা আমাদের পূজা-অর্চনায় সাহায্য করে থাকে। কিন্তু কে বা কারা কেন এটা ঘটাল আমরা বুঝতে পারছি না।’

মন্দির কমিটির সভাপতি ধনেশ চন্দ্র রায় বলেন, ‘প্রায় ২০ বছর ধরে এখানে পূজা হয়। কখনো এমন ঘটনা ঘটেনি। এ নিয়ে আমাদের মধ্যে কিছুটা ভয় কাজ করছে। এ জন্য থানায় অভিযোগ দিয়ে প্রতিকার চাওয়া হবে।’

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবু আক্কাছ আহমদ বলেন, ‘আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

ট্যাগ: bdnewshour24 পঞ্চগড়