banglanewspaper

এম,লুৎফর রহমান, নরসিংদী: নরসিংদী জেলাধীন পলাশ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেটি নানা ধরনের সমস্যায় জর্জরিত। একদিকে চিকিৎসক ও দক্ষ জনবল সংকট অন্যদিকে প্রয়োজনীয় ঔষধের অভাব। তার উপর চিকিৎসা সেবা দেয়ার নানা সরঞ্জাম ও মেশিনারিজ নষ্ট থাকায় চিকিৎসা নিতে আসা সাধারণ রোগীরা সেবা থেকে বি ত হচ্ছেন।

জানা গেছে, ৩১ শয্যার এই হাসপাতালটিতে সার্জারি, ইএনটি বিশেষজ্ঞ, শিশু বিশেষজ্ঞ, অর্থোপেডিকস, চক্ষু, চর্ম, রেডিওগ্রাফি, ফিজোওথেরাপিসহ গুরুত্বপূর্ণ বিভাগের চিকিৎসক নেই। সামান্য ইসিজি মেশিনটিও থাকে সার্বক্ষণিক নষ্ট। ফলে উপজেলার প্রায় ৫ লক্ষাধিক মানুষকে চিকিৎসা সেবা পেতে চরম ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। চিকিৎসা নিতে আসা সাধারণ রোগীরা নানা ধরনের অসুবিধার কথা জানান।

তাদের অভিযোগ, ৩১ শয্যার এই হাসপাতালটিতে ৩ জন কনসালটেন্টসহ ৭ জন চিকিৎসকের পদ রয়েছে। এর মধ্যে ৬ জন চিকিৎসক পদায়নে রয়েছেন। প্রতিদিন হাসপাতালের বহির্বিভাগে সেবা নিতে ১২০ থেকে ১৫০ রোগী আসেন। আর জরুরি বিভাগে সেবা নিতে আসেন গড়ে ৫০ থেকে ৬০ রোগী।

অভিযোগ রয়েছে, ৬ জন চিকিৎসকও নিয়মিত হাসপাতালে থাকেন না। সবাই প্রাইভেট ক্লিনিকে ব্যস্ত থাকেন। ফলে অসহায়, দরিদ্র ও নিন্ম আয়ের সাধারণ মানুষ চিকিৎসা সেবা থেকে বি ত হচ্ছেন।

পলাশ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা (টিএইচও) ডা. আল বেলাল জানান, মাঝে মধ্যেই রোগীদের সেবা প্রদানে বিঘ্ন ঘটে। কারণ হাসপাতালের বিভিন্ন মেশিনারিজ ও যন্ত্রপাতির কিছুটা সমস্যা রয়েছে। সে কারণে পরিক্ষা নিরীক্ষায় কিছুটা ব্যাঘাত ঘটে। তবে সার্বিকভাবে চিকিৎসা সেবা ভালো আছে।

ট্যাগ: bdnewshour24 নরসিংদী