banglanewspaper

বেনাপোল প্রতিনিধি: যশোরের শার্শা উপজেলার বাগআঁচড়া সাতমাইলে অবস্থিত রুবা ক্লিনিকের ডা. আহসান হাবীব রানার অবহেলায় আবারও মোর্শেদা খাতুন (২০) নামে এক রোগীর অকাল মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। তিনি উপজেলার মহিষাকুড়া গ্রামের শিমুলের স্ত্রী।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মোর্শেদা খাতুনের পেটে রবিবার সকাল থেকে প্রচন্ডভাবে যন্ত্রণা শুরু হয়। গ্রাম্য ডাক্তার তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়। এসময় রোগীর অবস্থার কোন উন্নতি না হওয়ায় পরিবারের পক্ষ থেকে তাকে বাগআঁচড়া সাতমাইল রুবা ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়।

ডা. আহসান হাবীব রানা রোগীকে বিভিন্ন প্রকার চিকিৎসা দেয়। চিকিৎসায় মোর্শেদার অবস্থার শেষ পর্যায়ে যন্ত্রণায় রোগী ছটফট করার সুযোগে রুবা ক্লিনিকের চিকিৎসক রবিবার সন্ধ্যায় শার্শা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রেফার্ড করেন। স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রোগী ভর্তি হওয়ার পর চিকিৎসকের সেবা পাওয়ার আগেই মোর্শেদা মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে। 

রোগীর নিকটাত্মীয় প্রভাষক মিজানুর রহমান সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করে বলেন, ‘আহসান হাবীব রানার অবহেলার কারণে রোগীকে বাঁচানো গেল না। যদি সে ভর্তি না রেখেই অতি দ্রুত উন্নত চিকিৎসার জন্য পাঠানো হতো, তাহলে হয়তো মোর্শেদার এই অকাল মৃত্যু দেখা লাগতো না।’

রুবা ক্লিনিকের পরিচালক ডা. আহসান হাবীব রানার নিকট জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘মোর্শেদা নামের একটা রোগী ভর্তি হয়েছিল, তাকে একটা স্যালাইন দিয়ে নাভারণ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠিয়ে দিয়েছি। আমার কাছে দু'জন সাংবাদিক জানতে এসেছিল। আমি ওদের বলেছি। এখন মৃত্যুর দায় কার তা আমি বলতে পারব না।’

উল্লেখ্য, ইতিপূর্বে রুবা ক্লিনিকে ভিন্ন ভিন্ন সময়ে ডাক্তারের অবহেলার কারণে অনেক রোগী মারা যায়। গত ১৩ জুলাই কবিরুলের স্ত্রী হিরা (২২) নামের এক প্রসূতি মায়ের প্রসব বেদনা উঠলে তার স্বজনেরা রুবা ক্লিনিকে নিয়ে যায়। সেখানে দীর্ঘক্ষণ চেষ্টার পর চিকিৎসক রানা জানান, এখনও সময় হয়নি, নরমাল ডেলিভারী হবে, অপেক্ষা করুন, ধৈর্য ধরুন। কিছুক্ষণ পর প্রসব বেদনা কমে যায়।

১৪ জুলাই রাতে রোগী আবার ছটফট শুরু করলে ডা. রানা রোগীকে ঘুমের ঔষধ দিয়ে ঘুমিয়ে রাখেন। পরদিন আবারও ছটফট করতে করতে হিরা খাতুন নিথর হয়ে যায়। এ সময় ডা. রানা তড়িঘড়ি করে উন্নত চিকিৎসার জন্য শার্শা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যেতে বলেন।

এ বিষয়টি নিয়ে অনেক অর্থের বিনিময়ে স্থানীয় প্রভাবশালী নেতাকর্মীর আশ্রয়ে গিয়ে ধামা চাপা দেয়।

ট্যাগ: bdnewshour24 শার্শা