banglanewspaper

প্রতিটি মানুষকে একদিন নতুন জীবন শুরু করতে হয়। যে ঘরে তার জন্ম বেড়ে ওঠা সেই ঘরটাকেও একদিন নতুন করে সাজিয়ে নতুন মানুষের সঙ্গে জীবন ভাগাভাগি করতে হয়। মেয়েদের ক্ষেত্রে আবার বিষয়টা আলাদা। চিরপরিচিত বাবা-মায়ের ঘর ছেড়ে একদিন তাদেরকে স্বামীর ঘরে বধূ সেজে যেতেই হয়। কিন্তু নতুন ঘরে নতুন মানুষদের সঙ্গে নতুন পরিবেশে সবাই সমানভাবে মানিয়ে নিতে পারে না। অনেকে আবার এই না পারার কারণে সংসারে ডেকে আনেন অশান্তি, কলহ। 

নতুন সংসারে নতুন পরিবেশে মানিয়ে নেয়ার এরকমই ১০টি টিপস পাঠকের জন্য তুলে ধরা হলো-

১. সবাইকে নিজের করে নিন: নতুন সংসারে গিয়ে স্বামী, শ্বশুর-শাশুড়ি কিংবা আত্মীয়দের শুরুতেই নিজের করে নিন। তাহলে তারাও আপনাকে আপন করে নিতে পারবে সহজে। 

২. ইগো পরিহার করুন: নতুন সংসার কিংবা দাম্পত্য জীবনে তিক্ততার আরেকটি কারণ কিন্তু ইগো। অতএব ইগো ত্যাগ করে ভালোবাসতে শিখুন। 

৩. কারও সঙ্গে কাউকে তুলনা না করা: প্রতিটি মানুষেরই পৃথক বৈশিষ্ট্য ও চলন থাকে। তাই কারও সঙ্গে কাউকে তুলনা থেকে আপনি নিজেকে দূরে রাখুন। 

৪. নতুন পরিবারকে জানুন: অচেনা জায়গায় অনেক কিছুই অজানা থাকে। অনেকের সম্পর্কেই কিছু জানা থাকে না। তাই আপনার নতুন ঠিকানা সম্পর্কে জানার চেষ্টা করুন, স্বামীকে বড় সহযোগী করে তুলুন।

৫. বাচ্চাদের সময় দিন: নতুন সংসারে যদি কোনও আত্মীয়র বাচ্চা থাকে তবে সেই বাচ্চাকে নিয়ে সময় কাটান। তাকে কোলে নিন, তার সঙ্গে মিশুন, খেলা করেন। তবে আপনার প্রতি সবার আস্থা বাড়বে। 

৬. বড়দের সম্মান করুন: শ্বশুর বাড়ি গিয়ে বড়দের সম্মান করতে হবে। আদপকায়দা করে কথা বলতে হবে। কোনও কিছুতে শুরুতেই নিজের মতামত জানাবেন না। একটু কম কথা বলুন।

৭. কাজে সহায়তা: পরিবারের কাজে সহায়তা করুন। প্রয়োজনে রান্না ঘরে সময় দিন। মনে রাখবেন সংসারটা আপনারও।

৮. যোগাযোগ: আত্মীয় ও স্বামীর সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখুন। যদি আপনার শ্বশুর-শাশুড়ি বা দেবর-ননদ আপনাদের সাথে না থাকেন, তাহলে প্রতিদিন আপনার শ্বশুর-শাশুড়িকে ফোন করুন। তাদের দিন কেমন কেটেছে জিজ্ঞেস করুন, আপনি সারাদিন কী কী করলেন সেগুলো তাদের বলুন। তাতে দ্রুত সহজ হবে সম্পর্ক।

৯. স্বামীর প্রশংসা: পরিবারের সবার সঙ্গে স্বামী সম্পর্কে প্রশংসা করুন। কখনও স্বামীকে নিয়ে কটু কথা বলবেন না। তার সম্পর্কে শ্বশুর-শাশুড়িকে নেতিবাচক মন্তব্য করবেন না। তাতে আপনার দাম্পত্য সম্পর্ক হবে আরও মধুময়। 

১০. স্পষ্টভাষী: পরিস্থিতি বুঝে স্পষ্টভাষী হওয়ার চেষ্টা করুন। আড়ালে কিছু বলার চেয়ে সামনাসামনি বলতে পারলে নতুন সংসারে আপনার অস্তিত্ব দৃঢ় হবে। 
 

ট্যাগ: bdnewshour24 শ্বশুর