banglanewspaper

আগের দুই ম্যাচের মতো ত্রিনবাগো নাইট রাইডার্সের বিপক্ষেও নিয়ন্ত্রিত বোলিং করলেন সাকিব আল হাসান। ঝুলিতে তোলা উইকেটের সংখ্যাকে নিলেন বাড়িয়ে। ব্যাট হাতে সফল না হলেও বল হাতে উজ্জ্বল পারফরম্যান্স দেখিয়ে বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টসের টানা দ্বিতীয় জয়ে রাখলেন দারুণ অবদান।

গতককাল বুধবার রাতে (২ অক্টোবর) ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের প্রাথমিক পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে ত্রিনবাগোকে ৭ উইকেটের বড় ব্যবধানে হারিয়েছে বার্বাডোজ। এই জয়ে ১০ ম্যাচে ১০ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট তালিকার দ্বিতীয় স্থানে উঠে গেছে দলটি।

পোর্ট অব স্পেনে টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৩৪ রানের সাদামাটা সংগ্রহ গড়ে ত্রিনবাগো। সহজ লক্ষ্য তাড়ায় ২ বল বাকি থাকতে মাত্র ৩ উইকেট হারিয়ে ১৩৫ রান তুলে জয়ের বন্দরে নোঙর করে বার্বাডোজ।

বাংলাদেশের বাঁহাতি বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব ৪ ওভারে ২৫ রান খরচায় নেন ২ উইকেট। ডট দেন ১১টি। বার্বাডোজের হয়ে এবারের মৌসুমে প্রথম ম্যাচে ১৪ রানে ১ উইকেট নেওয়ার পর দ্বিতীয়টিতে ২০ রানে ১ উইকেট নিয়েছিলেন টাইগার টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি দলনেতা।

আগের দুই ম্যাচের মতো এদিনও সাকিব হাতে তুলে নেন নতুন বল। প্রথম ওভারের পঞ্চম বলেই দলকে পাইয়ে দেন উইকেট প্রাপ্তির স্বাদ। নিজের বলে নিজেই ক্যাচ ধরে সাজঘরে পাঠান ত্রিনবাগোর ওপেনার জিমি নিশামকে। এরপর ইনিংসের ১৫তম ওভারে বার্বাডোজকে কাঙ্ক্ষিত ব্রেক থ্রুও দেন সাকিব। ঝড় তোলা আরেক ওপেনার লেন্ডল সিমন্সকে বোল্ড করেন। আউট হওয়ার আগে ৪৫ বলে ৩ চার ও ৪ ছয়ে ৬০ রান করেন তিনি।

সিমন্সের আউটের পর খেই হারায় ত্রিনবাগো। ইনিংসের শেষ ৫.১ ওভারে মাত্র ৩০ রান যোগ করতে পারে তারা। হারায় আরও ৪ উইকেট। সাকিবের পাশাপাশি ২টি করে উইকেট নেন হ্যারি গার্নি ও হেইডেন ওয়ালশ।

জবাব দিতে নেমে বার্বাডোজকে জয়ের ভিত গড়ে দেন জনসন চার্লস ও অ্যালেক্স হেলস। তারা ওপেনিং জুটিতে ৭.৫ ওভারে যোগ করেন ৫৪ রান। হেলস ২৭ বলে ৬ চারে করেন ৩৩ রান।

এরপর সাকিব থিতু হয়ে ফেরেন ১৪ বলে ১৩ রান করে। আরেক ওপেনার চার্লস দারুণ ব্যাটিংয়ে তুলে নেন হাফসেঞ্চুরি। তিনি খেলেন ৪৭ বলে ৫৫ রানের ইনিংস। তার ব্যাট থেকে আসে ৫ চার ও ২ ছয়। চার্লসের বিদায়ের পর বাকি দায়িত্বটুকু সারেন জেপি ডুমিনি ও অ্যাশলে নার্স।

ট্যাগ: bdnewshour24 সাকিব