banglanewspaper

আলফাজ সরকার আকাশ, শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি: ফুটফুটে শিশুটিকে কোলের পাশে নিয়েই ঘুমিয়ে ছিলেন মা মুন্নি আক্তার। খাটের আরেক পাশে ঘুমিয়ে ছিলেন শিশুটির নানী। এদিকে গত দুদিন আগে শ্বশুর বাড়িতে আসা শিশুটির বাবা বিজয় হাসান পাশের রুমেই ঘুমিয়েছিলেন। ভোর রাতের কোন এক সময় মায়ের কোল থেকে কৌশলে শিশুপুত্রকে তুলে নিয়ে বারান্দায় বালতিতে চুবিয়ে মারার অভিযোগ উঠেছে বাবার বিরুদ্ধে। এমন হৃদয়বিদারক ঘটনা ঘটেছে গাজীপুরের শ্রীপুরে। এ ঘটনায় পাষাণ্ড পিতা বিজয়কে আটক করেছে থানা পুলিশ।

২৭ অক্টোবর রবিবার ভোরে শ্রীপুর পৌর এলাকার ভাংনাহাটি (সিআরসি কারখানার দক্ষিন পাশে) গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

নিহত আব্দুল্লাহ আল মাহাদি (১৮ দিন) উপজেলার গাজীপুর ইউনিয়নের নগর হাওলা গ্রামের বিজয় হাসানের ছেলে। 

আটক বিজয় হাসান (২৫) একই  গ্রামের শামসুল হকের ছেলে।

নিহতের নানা মোফাজ্জল হোসেন জানান, গত দেড় বছর আগে বিজয় হাসানের সাথে আমার মেয়ে মুন্নির বিয়ে হয়। মাদকাসক্ত বিজয় বিয়ের পর থেকেই ছোট-খাটো বিষয় নিয়ে মুন্নিকে নানা ধরনের নির্যাতন করতো। মুন্নী গর্ভবতী হওয়ার পর থেকে তার "বাচ্চার দরকার নাই" বলে প্রায়ই সময় জানাতো বিজয়। এ জন্য ডেলিভারি করানোর প্রয়োজনে আমার বাড়ীতে নিয়ে আসি। গত ৯ অক্টোবর মাওনা চৌরাস্তার মাদারস কেয়ার হসপিটালে সিজারের মাধ্যমে শিশু আব্দুল্লাহর জন্ম হয়। গত রাতে  নানী ও তার মায়ের সাথে ঘুমন্ত অবস্থায় আব্দুল্লাহকে নিয়ে বালতিতে চুবিয়ে রাখে বিজয়। পরে সকালে ঘুম থেকে উঠে বিছানায় আব্দুল্লাকে না পেয় খুঁজাখুঁজি করে বারান্দায় বালতির পানিতে পরে থাকতে দেখে শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে। 

শ্রীপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) নাজমুল সাকিব জানান, খবর পেয়ে হাসপাতাল হতে শিশুটির লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুরে শহীদ তাজউদ্দিন আহমদ মেডিকেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। 

শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি লিয়াকত আলী জানান, ঘটনা অবগত হওয়ার সাথে সাথেই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় শিশুটির পিতা বিজয় হাসানকে আটক করা হয়েছে।  তদন্তের পর বিস্তারিত বলা যাবে বলেও জানান তিনি।

ট্যাগ: bdnewshour24 শ্রীপুর