banglanewspaper

যে পায়ের কারিকুরি দিয়ে ফুটবলে নাম ছড়িয়েছিলেন পর্তুগিজ মিডফিল্ডার আন্দ্রে গোমেজ, সেই পায়ে আর বুট পড়তে পারবেন কিনা তা নিয়ে দেখা দিয়েছে সংশয়।

‘ভয়ঙ্কর’ চোটে পড়ে ক্যারিয়ারটাই এখন ধ্বংসের মুখে তার। ভেঙে দুই টুকরো হয়ে গেছে গোমেজের পা। সুস্থ হয়ে ওঠলেও হয়তো বুটজোড়া আজীবনের জন্য তুলে রাখতে হতে পারে ২৬ বছর বয়সী এই তারকাকে।

রবিবার রাতে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে ঘরের মাঠ গুডিসন পার্কে টটেনহামকে আতিথেয়তা দিয়েছিল এভারটন। ৬৩ মিনিটে ডেলে আলির গোলে এগিয়ে গিয়েছিল স্পার্সরা। এরপর সমতায় ফেরার জন্য ধারাবাহিক আক্রমণ করছিল এভারটন। তেমনই এক আক্রমণে যাওয়ার সময় সের্গে অরিয়েরের সঙ্গে ধাক্কা খান গোমেজ। পরে সন হিয়ুং মিনের পায়ের সঙ্গে গিয়ে লাগে গোমেজের পা।

সন ব্যথা পেয়ে ওঠে দাঁড়াতে পারলেও গোমেজ আর ওঠে দাঁড়াতে পারেননি। কিছুক্ষণ পর দেখা যায় দু’টুকরো হয়ে গেছে পর্তুগিজ মিডফিল্ডারের পা। এমন দৃশ্য দেখে সতীর্থরা তো বটে কান্নায় ভেঙে পড়েন সন মিনও। উল্টে যাওয়া পা ধরে ব্যথায় চিৎকার করতে থাকেন গোমেজ। পরে স্ট্রেচারে করে দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে।

এই ঘটনার পর কোরিয়ান ফরোয়ার্ড সনকে অবশ্য ৭৯ মিনিটে লাল কার্ডকে দেখিয়ে বের করে দেন রেফারি মার্টিন অ্যাটকিনসন। ১০ জনের দল হয়ে পড়া টটেনহামের বিপক্ষে যোগ করা সপ্তম মিনিটে তোসুনের গোলে সমতায় ফেরে এভারটন।

২০১৬-১৯ মৌসুম পযর্ন্ত বার্সেলোনায় ছিলেন গোমেজ। তার মধ্যে ২০১৮-১৯ তিনি ধারে যোগ দেন এভারটনে। চলতি মৌসুমে গুডিসন পার্কে থাকার পাকাপোক্ত চুক্তি করেছিলেন তিনি। পর্তুগালের জার্সিতে ২৯ ম্যাচও খেলেছেন গোমেজ। পর্তুগিজদের অন্যতম সম্ভাবনাময় তারকা ছিলেন তিনি।

ট্যাগ: bdnewshour24 ভয়ঙ্কর সংঘর্ষ গোমেজ