banglanewspaper

বঙ্গবন্ধু বিপিএলের (বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ) পর্দা উঠবে ৮ ডিসেম্বর। বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসের সবচেয়ে জমকালো অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে টুর্নামেন্টের সপ্তম আসরের উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

উদ্বোধন ৮ ডিসেম্বর হলেও খেলা মাঠে গড়াবে ১১ ডিসেম্বর। বুধবার, ৬ নভেম্বর খবরটা নিশ্চিত করেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।

তবে এর আগে ৬ ডিসেম্বর বিপিএল শুরুর কথা জানিয়ে ছিল বিসিবি।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে আগামী বিপিএলের নাম দেওয়া হয়েছে ‘বঙ্গবন্ধু বিপিএল’। দেশের জনপ্রিয় এ টি-টোয়েন্টি আসর এবার ফ্র্যাঞ্চাইজি ছাড়াই আয়োজন করতে যাচ্ছে বিসিবি।

আসরের উদ্বোধন নিয়ে নাজমুল হাসান বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকীর কাউন্টডাউন শুরু হচ্ছে ৮ ডিসেম্বর। ওই দিনই বঙ্গবন্ধু বিপিএলটা উদ্বোধনের জন্য প্রধানমন্ত্রী নিজে আসবেন বলে আমাদের সম্মতি দিয়েছেন।’

উদ্বোধনী অনুষ্ঠান নিয়ে বোর্ড সভাপতি বলেন, ‘টুর্নামেন্ট যেহেতু বঙ্গবন্ধুর নামে হচ্ছে, জাঁকজমকপূর্ণভাবে করা উচিত। এটুকু বলতে পারি, ক্রিকেট বোর্ডের ইতিহাসে এত জাঁকজমকপূর্ণভাবে কোনো আয়োজন করা হয়নি। সেরকম কিছু করারই ইচ্ছে আছে।’

পিছিয়ে গেছে প্লেয়ার ড্রাফটের দিনক্ষণও। ১২ নভেম্বরের বদলে বঙ্গবন্ধু বিপিএলের প্লেয়ার্স ড্রাফট হবে ১৭ নভেম্বর। আর খেলা শুরু হবে ১১ ডিসেম্বর। 

টুর্নামেন্টের এবারের এ স্পেশাল আসরে আগের মতো ৭টি দলই থাকবে। ইতোমধ্যে পাঁচটি দলের স্পন্সর ঠিক হয়ে গেছে। বাকি দুটি স্পন্সর ঠিক করতে যাচ্ছে বোর্ড। আবার এমনও হতে পারে বিসিবিই চালাবে দল।

ট্যাগ: bdnewshour24 বিপিএল