banglanewspaper

নানা হুঁশিয়ারি, অভিযানের পরও পেঁয়াজের দাম এখনো স্বাভাবিকের চেয়ে কয়েকগুণ বেশি। কোথাও কম দামে পেঁয়াজ বিক্রির খবর শুনলে ছুটছে সাধারণ মানুষ। এবার সেই তালিকায় নাম লেখালেন সিলেটের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। ট্রাক থেকে ৪৫ টাকায় পেঁয়াজ কেনার জন্য লাইনে দাঁড়িয়েছেন এই জনপ্রতিনিধি।

খবরটি ছড়িয়ে পড়লে সিলেটে হুলস্থুল পড়ে যায়। খোদ মেয়রকে লাইনে দাঁড়িয়ে পেঁয়াজ কিনতে দেখে কাউন্সিলরসহ অনেক গণ্যমান্য ব্যক্তিরাও ট্রাকের সামনে দাঁড়িয়ে যান। ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার দুপুরে সিলেট নগরীর সুরমা মার্কেট পয়েন্টে।

এসময় মেয়র গণমাধ্যমকে বলেন, সাধারণ মানুষের কাতারে এসে পেঁয়াজ কিনতে আসা তার প্রতীকী প্রতিবাদ। নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম কমানোরও দাবি জানান মেয়র।

সিলেটে সীমান্ত পথে আসা চোরাচালানের দুই ট্রাক পেঁয়াজ গত শনিবার আটক করে শাহপরান থানা পুলিশ। পরে সিদ্ধান্ত নিয়ে ওই পেঁয়াজের চালান ৪৫ টাকা দরে বিক্রির শর্তে ট্রাক ছাড়া হয়।

সে অনুযায়ী সকাল ১০টা থেকে নগরীর সুরমা পয়েন্ট, রিকাবীবাজার পয়েন্ট ও দক্ষিণ সুরমা পয়েন্টে ৪৫ টাকা দরে পেঁয়াজ বিক্রি শুরু হয়। এই খবরে হাজার হাজার মানুষ পেঁয়াজ কিনতে ভিড় করেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ডাকা হয় পুলিশ।

এদিকে খবর পেয়ে এক কেজি পেঁয়াজ কিনতে ব্যাগ হাতে নিয়ে লাইনে দাঁড়ান মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। তিনি বলেন, ‘মানুষ পেঁয়াজের জন্য অস্থির। আমার ঘরেও পেঁয়াজ নেই। এ কারণে লাইনে এসে দাঁড়িয়েছি। এক কেজি পেঁয়াজ পেলেও ১৫ দিন চলে যাবে।’

ট্যাগ: bdnewshour24 পেঁয়াজ মেয়র আরিফুল