banglanewspaper

বাংলাদেশের মানবাধিকার পরিস্থিতি সারাবিশ্বে প্রশংসনীয় বলে মন্তব্য করেছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সব নাগরিকের মৌলিক মানবাধিকার নিশ্চিত করেছেন।

মঙ্গলবার (২৮ জানুয়ারি) রাজধানী গুলশানের লেকশোর হোটেলে ‘ইমপ্লিমেন্টেশন অব দ্য থার্ড পিরিওডিক রিভিউ অব বাংলাদেশ' শীর্ষক সেমিনার শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন আইনমন্ত্রী।

আনিসুল হক বলেন, আমাদের মানবাধিকার পরিস্থিতি অত্যন্ত ভালো। এ বিষয়ে নতুন আরও কী কী করা যায়, মানবাধিকার পরিস্থিতি আরও শক্তিশালী করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় কাজ করছি। সংবিধানে মৌলিক মানবাধিকার নিশ্চিত করা হয়েছে। তারপরও নতুন কিছু যোগ করা যায় কি-না, সেটি নিয়ে আমরা কাজ করছি। 

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন অনেকের মধ্যে নিয়ে উদ্বেগ আছে, এটি আমরা জানি। তবে আমি বলতে চাই, এটি সাইবার অপরাধ দমনের জন্য করা হয়েছে, বাকস্বাধীনতা বা সংবাদপত্রের স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপের জন্য নয়। এখন পর্যন্ত এই উদ্দেশ্যে এ আইন ব্যবহার করা হয়নি।

রোহিঙ্গাদের মানবাধিকার সুরক্ষায় জাতিসংঘের ভূমিকা সম্পর্কে বলতে গিয়ে আনিসুল হক বলেন, বাংলাদেশ আশাবাদী, রোহিঙ্গাদের মৌলিক মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় মিয়ানমারের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করবে জাতিসংঘ। আমরা রোহিঙ্গাদের জন্য সীমান্ত উন্মুক্ত করে দিয়েছিলাম। আমি আশা করি, আইসিজের সিদ্ধান্ত রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানের একটি টেকসই এবং সবার কাছে গ্রহণযোগ্য সমাধান খুঁজে বের করতে সাহায্য করবে।

এ সময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একেএম আবদুল মোমেন ও পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন উপস্থিত ছিলেন।

ট্যাগ: bdnewshour24 আইনমন্ত্রী