banglanewspaper

অস্কারজয়ী ভারতীয় সংগীত পরিচালক ও সুরকার এ আর রহমানের মেয়ে খাদিজার বোরকা তার শ্বাসরূদ্ধ করে। এমনই মন্তব্য করে সম্প্রতি বিতর্ক ছড়িয়েছেন বাংলাদেশ থেকে বিতাড়িত হয়ে ভারতে আশ্রয় নেয়া লেখিকা তসলিমা নাসরিন। তার এই মন্তব্য নিয়ে ঝড় ওঠেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। বেশিরভাগ নেটিজেনই সেখানে তসলিমার সমালোচনা করেছেন।

নিজের টুইটারে খাদিজার বোরকা পরা একটি ছবি পোস্ট করে তসলিমা লিখেন, ‘আমি এ আর রহমানের মিউজিক খুব ভালোবাসি। কিন্তু যখনই তার কন্যাকে বোরকা পরা দেখি, তখনই সাফোকেটেড (দম আটকা ভাব) লাগে। সাংস্কৃতির পরিবারের একজন শিক্ষিতা নারীর মগজও খুব সহজে ধোলাই করা যায়, এটা ভেবেই খুব হতাশ লাগে।’

এই মন্তব্যের ব্যাপারে তসলিমাকে উচিত জবাব দিয়েছেন এ আর রহমানের মেয়ে খাদিজা। তিনি লিখেছেন, ‘এক বছরও পার হয়নি, আবার এই বিষয়টি ঘুরে এল। এরই মধ্যে দেশে অনেক কিছু ঘটে গেছে। সেসব নিয়ে কথা বলুন। একজন নারী কী পরতে চান, তাকেই গুরুত্ব দেন সবাই। প্রতি বার এই ইস্যুটি সামনে এলেই অনেক কিছু বলার থাকে। আমি যা করছি বা পরছি, তার জন্য আমি খুশি ও গর্বিত।’

খাদিজা আরও লিখেছেন, ‘আমাকে যারা আমার মতো করে গ্রহণ করেছেন, তাদের আবারও ধন্যবাদ। আমার কাজই কথা বলবে। প্রিয় তসলিমা নাসরিন, আমার পোশাকের জন্য আপনি শ্বাসরুদ্ধ বোধ করছেন, এতে আমি দুঃখিত। অনুগ্রহ করে তাজা বাতাস নিন। কারণ আমি আদৌ সাফোকেটেড অনুভব করছি না, বরং যা করছি, তার জন্য গর্বিত। নারীবাদের প্রকৃত অর্থ কী, তা গুগলে একবার দেখে নিন।’

খাদিজার এই পোস্টটির প্রশংসা করেছেন নেটিজেনদের প্রায় সকলে। এর আগে গত বছরও এ আর রহমানের মেয়ে খাদিজার বোরকায় মুখ ঢাকা ছবি নিয়ে শোরগোল পড়ে গিয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়ায়। খাদিজার বোরকা পরা ভালো চোখে দেখেনি একটি দল। সে বার সাহসী জবাবে সোশ্যাল মিডিয়ার সেই ট্রোল থামিয়েছিলেন এ আর রহমান। এবার প্রতিবাদ করলেন স্বয়ং খাদিজা।

ট্যাগ: bdnewshour24 তসলিমা